বনের ভেতর ৩৮টি কয়লা তৈরির চুল্লি ধ্বংস

ঢাকা, রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১১ ফাল্গুন ১৪২৬

বনের ভেতর ৩৮টি কয়লা তৈরির চুল্লি ধ্বংস

মির্জাপুর প্রতিনিধি ৩:৫২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২০

print
বনের ভেতর ৩৮টি কয়লা তৈরির চুল্লি ধ্বংস

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে কাঠ পুড়িয়ে ৩৮টি অবৈধ কয়লা তৈরির চুল্লি গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। সরকারি বনাঞ্চলের ভেতরে গড়ে ওঠা এ সব অবৈধ চুল্লি গুড়িয়ে দিয়েছে বনবিভাগ।

উপজেলার গায়রা বেতিল পুকুরপাড়, নয়াপাড়া, বংশীগর, হাটুভাঙ্গা, কুড়াতলী, চিতেশ্বরী, খাটিয়ারঘাট ও কুড়িপাড়া এলাকার অবৈধ এসব চুল্লি ধ্বংস এবং বিপুল পরিমান কাঠ উদ্ধার করা হয় বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন বিট কর্মকর্তা মো. জাহেদ হোসেন ও মো. হযরত আলী।

আজ (১৪ ফেব্রুয়ারি) তারা এসব তথ্য জানান।

হযরত আলী জানান, মির্জাপুরে ১৫ হাজার ৮০০ হেক্টর বনভূমি রয়েছে। বিশাল এই বনে রয়েছে গজারি, গর্জন, সেগুন, আকাশমনি, পিকরাশিসহ বিভিন্ন প্রজাতির মূল্যবান গাছ। এছাড়াও সমাজিক বনায়ন কর্মসূচির আওতায় প্রচুর বৃক্ষরোপণ করা হয়েছে। একটি অসাধু চক্র এখানে কাঠ পুড়িয়ে কয়লা তৈরীর অবৈধ চুল্লি গড়ে তুলেছেন। কিছু সংঘবদ্ধ কাঠ চোর বিভিন্ন সময় রাতের আঁধারে কৌশলে গাছ চুরির চেষ্টা করে আসছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

এ ব্যাপারে টাঙ্গাইলের বনবিভাগের সহকারী বনরক্ষক মো. জামাল হোসেন তালুকদার বলেন, অভিযানে ৩৮টি অবৈধ কয়লার চুল্লি ধ্বংস করা হয়েছে। এর আগেও করাত কল উচ্ছেদ ও বিভিন্ন সরঞ্জাম উদ্ধার করে কাঠ চোরদের নামে মামলা দেওয়া হয়েছে।