ঢাকা, মঙ্গলবার, ৫ মার্চ ২০২৪ | ২১ ফাল্গুন ১৪৩০

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

হামাসের বিরুদ্ধে ফের লড়াই শুরুর ঘোষণা ইসরায়েলের

অনলাইন ডেস্ক
🕐 ৩:৩১ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০১, ২০২৩

হামাসের বিরুদ্ধে ফের লড়াই শুরুর ঘোষণা ইসরায়েলের

ফিলিস্তিনের ছিটমহল গাজায় হামাসের বিরুদ্ধে তারা আবার যুদ্ধ শুরু করেছে বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছে ইসরায়েল। তাদের অভিযোগ, ইসরায়েলি ভূখণ্ডে রকেট ছুড়ে হামাস যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করেছে।

 

শুক্রবার গাজার স্থানীয় সময় সকাল ৭টায় সাত দিনের যুদ্ধবিরতি শেষ হওয়ার কিছুক্ষণ আগে ইসরায়েল জানায়, তারা গাজা থেকে ছোড়া একটি রকেট গুলি করে ভূপাতিত করেছে। এর কিছুক্ষণের মধ্যে হামাসের সঙ্গে সম্পর্কিত ফিলিস্তিনি গণমাধ্যমগুলো গাজার উত্তরাংশে বিস্ফোরণ ও গুলির শব্দ শোনা যাচ্ছে বলে জানায়।

গাজা সিটি ও গাজা ভূখণ্ডের উত্তরাংশের প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে আল জাজিরা জানিয়েছে, সেখানে ফিলিস্তিনি যোদ্ধা ও ইসরায়েলি সেনাদের মধ্যে তীব্র লড়াই শুরু হয়ে গেছে।

বিবিসি লাইভের প্রতিবেদনে হামাসের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও নিরাপত্তা মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে জানানো হয়েছে, গাজা ভূখণ্ডের দক্ষিণাংশে বেশ কয়েকটি বিমান হামলা চালানো হয়েছে।

গাজার ভেতরে থাকা বিবিসির সংবাদাতারা জানিয়েছেন, গাজার উত্তরাঞ্চল থেকে বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে এবং গাজা সিটির উত্তরপশ্চিমে দুই পক্ষের মধ্যে ব্যাপক গুলি বিনিময় হচ্ছে।

গাজা ভূখণ্ডের মাঝামাঝি ইসরায়েলি ট্যাংকগুলো নুসেরাত ও বুরেইজ শরণার্থী শিবিরগুলোর কাছে গোলাবর্ষণ করছে।

সামাজিক মাধ্যম এক্স এ দেওয়া এক বিবৃতিতে ইসরায়েলের সামরিক বাহিনী বলেছে, “গাজা ভূখণ্ডে হামাসের সন্ত্রাসের লক্ষ্যস্থলগুলোতে জঙ্গি বিমানগুলো এখন আঘাত হানছে।”

স্থানীয় সময় ভোর ৬টার আগে ইসরায়েলের প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ) জানায়, গাজা ভূখণ্ডের নিকটবর্তী ইসরায়েলি এলাকাগুলোতে রকেট হামলার সতর্কতা জানিয়ে সাইরেন বাজছে।

এর কয়েক মিনিট পর দেশটির সামরিক বাহিনী জানায়, তারা গাজা থেকে ছোড়া একটি রকেট প্রতিহত করেছে।

এর পর সকাল ৭টায় যুদ্ধবিরতির সময় শেষ হওয়ার একটু আগে ইসরায়েলের দক্ষিণাঞ্চলের কিব্বত শুলেত এলাকায় আরেকবার রকেট হামলার সাইরেন বাজতে শোনা যায়।

এর কয়েক মিনিট পর ইসরায়েলের সামরিক বাহিনী একটি সংক্ষিপ্ত বিবৃতি প্রকাশ করে বলে, “হামাস চলমান বিরতি লঙ্ঘন করেছে আর ইসরায়েলের ভূখণ্ডের দিকে রকেট ছুড়েছে। আইডিএফ গাজা ভূখণ্ডে হামাস সন্ত্রাসী সংগঠনের বিরুদ্ধে আবার যুদ্ধ শুরু করেছে।”

তারপর থেকে স্থানীয় সময় সকাল ৮টা পর্যন্ত গাজার বিভিন্ন অংশ বহু হামলার খবর আসতে থাকে। আইডিএফ জানায়, তাদের জঙ্গি বিমানগুলো ‘হামাসের লক্ষ্যস্থলগুলো আঘাত হানছে’।

তবে যুদ্ধবিরতি অবসানের অল্প আগে থেকেই ফের লড়াই শুরু হয়ে গেলেও নতুন যুদ্ধবিরতি নিয়ে আলোচনা অব্যাহত আছে বলে এক ফিলিস্তিনি কর্মকর্তা জানিয়েছেন। কাতার, মিশর ও মার্কিন মধ্যস্থতাকারীরা এ বিষয়ে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছেন।

গত শুক্রবার থেকে যুদ্ধবিরতি শুরু হওয়ার পর থেকে এর মেয়াদ দুইবার বাড়ানো হয়েছিল। কাতার ও মিশরের মধ্যস্থতায় এবং যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থনে ২৪ নভেম্বর থেকে যুদ্ধবিরতি শুরু হয়েছিল। তখন থেকে এ পর্যন্ত গাজায় হামাসের হাতে বন্দি ১১০ জন জিম্মি মুক্তি পেয়েছে, বিনিময়ে ইসরায়েলের কারাগারগুলো থেকে ২৪০ জন বন্দিকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে।

৭ অক্টোবর হামাসের যোদ্ধারা গাজা সংলগ্ন দক্ষিণ ইসরায়েলে নজিরবিহীন আক্রমণ চালিয়ে সবাইকে স্তম্ভিত করে দেয়। ইসরায়েল জানিয়েছে, হামাসের এই আক্রমণে ১২০০ জন নিহত হয়েছে। হামাসের যোদ্ধারা ইসরায়েল থেকে প্রায় ২৪০ জনকে ধরে গাজায় নিয়ে জিম্মি করে রাখে।

এর প্রতিশোধ নিতে ওইদিন থেকেই গাজায় ভয়াবহ হামলা শুরু করে ইসরায়েল। সাত সপ্তাহ ধরে তাদের টানা ব্যাপক হামলায় ১৪৮০০ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে বলে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে। নিহতদের মধ্যে প্রায় ৬০০০ জন শিশু।

 
Electronic Paper