ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪ | ৯ শ্রাবণ ১৪৩১

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

বীর মুক্তিযোদ্ধার জমি দখল করে কালভার্ট ও রাস্তা নির্মাণের অভিযোগ

শরীয়তপুর প্রতিনিধি
🕐 ৬:২০ অপরাহ্ণ, জুলাই ১০, ২০২৪

বীর মুক্তিযোদ্ধার জমি দখল করে কালভার্ট ও রাস্তা নির্মাণের অভিযোগ

শরীয়তপুরের নাড়িয়া পৌরসভার নবগ্রাম এলাকায় বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ রওশন আলী শিকদারের জমি দখল করে বাউন্ডারি দেয়াল ও নির্মাণাধীন ভবনের সাইট ভেঙে পৌরসভার রাস্তা ও কালভার্ট নির্মাণের চেষ্টা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় মেয়র এর নিকট অভিযোগ করেছেন মুক্তিযোদ্ধার ছেলে প্রফেসর আব্দুল লতিফ। তবে তাতে কোন সুফল পায়নি ভুক্তভোগী পরিবার।

জানা যায়, মঙ্গলবার (৯ জুলাই) বিকালে হঠাৎ করেই বুলডোজার দিয়ে গুড়িয়ে দেওয়া হয় বাউন্ডারি দেয়াল ও বসতঘরের সাইট দেয়াল। এ সময় অভিযুক্তরা বীর মুক্তিযোদ্ধার পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করে এবং হুমকি-ধামকি দিয়ে ঐ স্থান থেকে তাদের সরিয়ে দেয়।

পরবর্তীতে মেয়র সেই স্থান সরেজমিনে পরিদর্শন করেন। তবে ভুক্তভোগী পরিবারের অভিযোগ, নির্মাণের সময় নড়িয়া পৌরসভার নিকট হইতে লিখিত অনুমোদন নিয়ে বাউন্ডারি ওয়াল এবং বসতঘর নির্মাণ করা হয়েছে । এছাড়াও ল্যান্ড সার্ভে টাইব্যুনাল আদালত শরীয়তপুরে ২৩/২০২১ একটি মামলা চলমান রয়েছে।

আব্দুল লতিফ বলেন, আমি অসুস্থ মানুষ। আমার সন্তানাদি নিয়ে আমি ঢাকায় বসবাস করি । প্রভাবশালী মহল সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে আমার জমি দখলের পায়তারা করছে। আমি চাই পৌরসভার উন্নয়ন হোক, তবে উন্নয়ন কাজে যদি জমি দিতে হয় তা উভয় পাশ থেকে নিতে হবে। সেক্ষেত্রে কেন আমার উপর সব চাপিয়ে দেয়া হবে? আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।

আমি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট লিখিত অভিযোগ দিবো। যদি সমাধান না হয় তাহলে আমি আইনের আশ্রয় গ্রহণ করব ।

এই বিষয়ে জানতে চাইলে নড়িয়া পৌরসভার মেয়র অ্যাড. আবুল কালাম আজাদ বলেন, অরে লাথি দিয়ে ওর জামি সুডাইয়া হালাইম। অয় এক এক জায়গায় জাইয়া টাকা হাদে। রাস্তার যা দরকার দুইপাশ থেকে সমানভাবে নিতাছি, ওর বিল্ডিং এর অনুমোদন নাই বিল্ডিং ভাঙ্গা দিমু।

 
Electronic Paper