ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪ | ৯ শ্রাবণ ১৪৩১

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

বান্দরবানের রুমা উপজেলায় সন্দেহভাজন ৪ কেএনএফ সদস্য গ্রেফতার

কৌশিক দাশ,বান্দরবান
🕐 ৩:০২ অপরাহ্ণ, জুন ১০, ২০২৪

বান্দরবানের রুমা উপজেলায় সন্দেহভাজন ৪ কেএনএফ সদস্য গ্রেফতার

বান্দরবানের রুমা উপজেলায় যৌথবাহিনীর অভিযানে সশস্ত্র সংগঠন কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) সন্দেহভাজন আরও ৪ জন সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল রোববার (৯ জুন) বিকলে তাদের রুমা সদরের ১নং পাইন্দু ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড এর জুরভারং পাড়া থেকে গ্রেপ্তার করে যৌথবাহিনীর সদস্যরা।

 

এরপর সোমবার (১০ জুন) দুপুরে গ্রেপ্তারকৃতদের কঠোর পুলিশি পাহারায় বান্দরবান সদর থানা থেকে প্রিজন ভ্যানে করে বান্দরবান চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন: কেএনএফ এর সন্দেহভাজন সদস্য রুমা উপজেলার বাসিন্দা ময়থাং বম (৩৮), জৌথান বম, থমাস এডিসন বম এবং লাল রনইহ সাং বম। এসময় আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ নাজমুল
হোসাইন আসামীদের জেল হাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন।

বান্দরবান আদালতের জিআরও বিশ্বজিৎ সিংহ বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রুমা থানায় দায়ের করা মামলায় ৪ জন আসামিকে আদালতে হাজির করা হলে আদালত তাদের জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ প্রদান করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত ২ এপ্রিল রাতে বান্দরবানের রুমা সোনালী ব্যাংকে ও পরে ৩ এপ্রিল দুপুরে থানচি উপজেলার সোনালী ব্যাংক ও কৃষি ব্যাংকে ডাকাতি, হামলা ও টাকা লুটের ঘটনা ঘটে। এদিকে এই ঘটনার পরে আসামিদের ধরতে বান্দরবানে শুরু
হয় যৌথবাহিনীর অভিযান আর অভিযানে র‌্যাব, পুলিশ, বিজিবি, আনসারের সঙ্গে সঙ্গে অংশ নিচ্ছে সেনাবাহিনীর সদস্যরা।
এদিকে ঘটনার পর বান্দরবানের রুমা থানায় ১৩টি, থানচি থানায় ৪টি, বান্দরবান

সদর থানায় ১টি এবং রোয়াংছড়ি থানায় ৩টিসহ সর্বমোট ২১টি মামলা দায়ের হয়। চলমান এই অভিযানে এই পর্যন্ত সর্বমোট কেএনএফের ৯৬ জন সদস্য ও সহযোগীকে গ্রেপ্তার করেছে যৌথবাহিনী।

 

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Electronic Paper