আশ্চর্য গর্ত

ঢাকা, সোমবার, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ৫ ফাল্গুন ১৪২৬

আশ্চর্য গর্ত

ডেস্ক রিপোর্ট ১০:৫৬ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২০

print
আশ্চর্য গর্ত

১০০ ফুট চওড়া এবং ৬০ ফুট গভীর এমন রহস্যজনক গর্ত রাশিয়ার উত্তর সাইবেরিয়া অঞ্চলের। এগুলো উৎপত্তির কারণ নিয়ে নানা জল্পনা-কল্পনা রয়ে গেছে। আবার এগুলোকে পৃথিবী ধ্বংসের কারণ হিসাবেও দেখছেন কেউ কেউ।

২০১৪ সালে হেলিকপ্টার থেকে প্রথম নজরে পড়ে গর্তগুলো। রহস্যজনক এই গর্তগুলো নিয়ে গবেষণা হয়েছে। কেউ মনে করেন, বিশালাকার উল্কা এই অংশে খসে পড়ে। কেউ বলছেন, ভিনগ্রহীদের যান নেমেছিল এই অংশে।

তবে এ নিয়ে গ্রহণযোগ্য একটি মতও রয়েছে বিজ্ঞানীমহলে। আর তা হলো, প্রাকৃতিক গ্যাসের নির্গমন। বিজ্ঞানীদের ধারণা, এই অংশে মাটির নীচে প্রচুর পরিমাণে মিথেন গ্যাস জমে ছিল। সাইবেরিয়ায় ক্রমশ বাড়তে থাকা তাপমাত্রার জেরে ওই গ্যাসের আয়তন বৃদ্ধি পায়। ফলে একসময় বিস্ফোরণ হয়েই এগুলোর সৃষ্টি হয়েছে। ওই গর্তের ভেতরে মিথেন গ্যাস উপস্থিতির প্রমাণও পাওয়া গেছে। কিন্তু বিজ্ঞানীদের এই ধারণা ঠিক হলে তা পৃথিবী ধ্বংসের ইঙ্গিতও হতে পারে।

কারণ, বিষয়টা যদি তাপমাত্রা বৃদ্ধির ফলেই ঘটে তাহলে এর কারণ বৈশ্বিক উষ্ণায়ন। সাইবেরিয়ায় জমে থাকা বরফ গলতে শুরু করেছে। তাপমাত্রা বাড়লে এ পরিস্থিতি আরও ভয়ঙ্কর আকার ধারণ করবে। যা পৃথিবীকে ধ্বংসের পথে নিয়ে যাবে।