কন্যাশিশুর জন্মের পরই পালিয়েছেন মা-বাবা

ঢাকা, রবিবার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১ | ৪ মাঘ ১৪২৭

কন্যাশিশুর জন্মের পরই পালিয়েছেন মা-বাবা

জেলা প্রতিনিধি ৮:৩৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ০৮, ২০২০

print
কন্যাশিশুর জন্মের পরই পালিয়েছেন মা-বাবা

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দুপুরের দিকে ফুটফুটে এক কন্যাশিশু জন্মদানের পরই তার মা-বাবাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে জানা যায়, ওই নবজাতকের জন্মের আধাঘণ্টা পরই পালিয়ে যায় মা-বাবা। ৮ নভেম্বর, রোববার বিকেলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা মধূসুদন ধ এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তির সময় সন্তান সম্ভবা ১৬ বছর বয়সী ওই তরুণীর স্বামীর নাম লেখা হয় ফারুক মিয়া। ওই সময় বাড়ির ঠিকানা হিসেবে কলকলিয়া ইউনিয়নের বালিকান্দি এলাকার নাম উল্লেখ করা হয়।

জগন্নাথপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ জানায়, সন্তান সম্ভবা ওই তরুণী প্রসব ব্যথা নিয়ে গতকাল শনিবার বিকেলে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়। এ সময় তার স্বামী ফারুক মিয়া সঙ্গে ছিল। সন্তান জন্মদানের আধাঘণ্টার মধ্যেই অন্য একটি বেডে নবজাতককে রেখে পালিয়ে যায় মা-বাবা। এরপর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাদের কোনো সন্ধান পায়নি। তাদের উল্লেখ করা বাড়ির ঠিকানাও ভুল দেওয়া ছিল।

এদিকে, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পক্ষ থেকে উপজেলা সমাজ সেবার সঙ্গে যোগাযোগ করলে তারা নবজাতকটিকে তাদের দায়িত্বে নিয়ে পরে সিলেটে পাঠানোর ব্যবস্থা করবে বলে জানায়।

জগন্নাথপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডা. মধুসূদন ধর জানান, দীর্ঘ সময় অপেক্ষার পর আজ দুপুরে বিষয়টি পুলিশ ও সমাজসেবা অধিদপ্তরকে চিঠি দিয়ে জানানো হয়েছে। উপজেলা সমাজসেবা অধিদপ্তর এরই মধ্যে নবজাতককে তাদের জিম্মায় নিয়ে গেছে। তবে ওই নবজাতক হাসপাতালেই আছে, সুস্থ-সবল আছে। তারা খুব শিগগিরই ওই নবজাতককে সিলেটে পাঠিয়ে দেবে। কিন্তু কী কারণে নবজাতকটিকে তার মা-বাবা ফেলে গেছে, তা জানা যায়নি।