কবর থেকে রায়হানের লাশ তুলে ফের তদন্তের নির্দেশ

ঢাকা, বুধবার, ২ ডিসেম্বর ২০২০ | ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

কবর থেকে রায়হানের লাশ তুলে ফের তদন্তের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক ৩:১৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৪, ২০২০

print
কবর থেকে রায়হানের লাশ তুলে ফের তদন্তের নির্দেশ

সিলেটের বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে পুলিশের নির্যাতনে মাহফুজুর রহমানের মৃত্যুর ঘটনায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে কবর থেকে রায়হানের লাশ তুলে পুনরায় ময়নাতদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

১৪ অক্টোবর, বুধবার সিলেটের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) এএইচএম মাহফুজুর রহমান এ নির্দেশ দিয়েছেন। জানা গেছে, আগের তদন্ত কর্মকর্তা কোতোয়ালি থানার এসআই আবদুল বাতেনের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে তিনি তিনি এ নির্দেশ দেন।

এর আগে ১০ অক্টোবর, শনিবার রাতে সিলেটের বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে নির্যাতনে মারা যান রায়হান উদ্দিন। এ ঘটনায় ১২ অক্টোবর, সোমবার নিহত রায়হানের স্ত্রী তান্নী বাদী হয়ে সিলেটের কোতোয়ালী থানায় অজ্ঞাতদের আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলার অভিযোগে বলা হয়েছে, গত শনিবার রাতে রায়হানকে বন্দরবাজার ফাঁড়িতে ধরে নিয়ে ১০ হাজার টাকা ঘুষ দাবি করে পুলিশের কয়েকজন সদস্য। ফোনে পরিবারের সদস্যদের টাকা নিয়ে আসতে বলেন রায়হান। রোববার সকালে ৫ হাজার টাকা নিয়ে তার পরিবারের সদস্যরা থানায় গিয়ে জানতে পারেন, অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে গিয়ে শোনেন রায়হান মারা গেছেন।

এ ঘটনার পর সোমবার বিকালে বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আকবরসহ ৪ পুলিশ সদস্যকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এ ছাড়া প্রত্যাহার করা হয়েছে আরো তিন পুলিশ সদস্যকে। বরখাস্তকৃত অপর তিনজন হলেন- কনস্টেবল হারুনুর রশীদ, কনস্টেবল তৌওহিদ মিয়া, কনস্টেবল টিটু চন্দ্র দাস। আর প্রত্যাহারকৃত পুলিশ সদস্যরা হলো- এএসআই আশেক এলাহী, এএসআই কুতুব আলী, কনস্টেবল সজিব হোসেন।