বিশ্বকাপ সুপার লিগ নিয়ে সতর্ক করলেন বিসিবি সভাপতি পাপন

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | ১৩ ফাল্গুন ১৪২৭

বিশ্বকাপ সুপার লিগ নিয়ে সতর্ক করলেন বিসিবি সভাপতি পাপন

খোলা কাগজ ডেস্ক ২:৩২ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৪, ২০২১

print
বিশ্বকাপ সুপার লিগ নিয়ে সতর্ক করলেন বিসিবি সভাপতি পাপন

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে বিশ্বকাপ সুপার লিগ শুরু করছে বাংলাদেশ। এই লিগকে ২০২৩ সালে ভারতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ওয়ানডে বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব ধরা হচ্ছে। আয়োজক দেশ ভারতসহ সুপার লিগের প্রথম সাতটি দল বিশ্বকাপে সরাসরি অংশ নেবে। বাকি দলগুলোকে খেলতে হবে আরেকটি বাছাই পর্ব।

ওই বাছাই পর্ব না খেলে বাংলাদেশ যেন সরাসরি বিশ্বকাপে খেলতে পারে সেই ভাবনা বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের। তাই সুপার লিগ নিয়ে খেলোয়াড়দের সতর্ক করলেন তিনি। সুপার লিগের প্রতিটি ম্যাচকেই গুরুত্বসহ দেখার আহ্বান জানালেন সভাপতি।

বিশ্বকাপ সুপার লিগে খেলবে মোট ১৩টি দল। ১২টি টেস্ট খেলুড়ে দেশ ছাড়া থাকছে ওয়ানডে মর্যাদা পাওয়া নেদারল্যান্ডস। প্রত্যেক দেশকে মোট আটটি সিরিজ খেলতে হবে। এর মধ্যে চারটি হোম, চারটি অ্যাওয়ে। প্রত্যেক সিরিজে কমপক্ষে তিনটি ওয়ানডে থাকতে হবে।

একটি ওয়ানডে জয়ের জন্য দলগুলো ১০ পয়েন্ট পাবে। হারলে শূন্য। টাই হলে বা ম্যাচ পণ্ড হলে দুদলের মধ্যে ১০ পয়েন্ট সমান ভাগে ভাগ করে দেয়া হবে।

চলমান ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে শুরু হয়েছে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের সুপার লিগ। এরই মধ্যে দুটিতে জিতে সিরিজ নিশ্চিত করেছে স্বাগতিকেরা। চট্টগ্রামে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে মাঠে নামার আগে সব ম্যাচকেই গুরুত্ব দেওয়ার কথা বললেন বিসিবি সভাপতি।

গতকাল শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে নাজমুল হাসান বলেন, ‘ওয়ানডে সুপার লিগ শুরু হলো। আমরা ২ ম্যাচ জিতে ২০ পয়েন্ট পেয়েছি। সামনে আমাদের প্রচুর ম্যাচ। একেকটা ম্যাচ খুব গুরুত্বপূর্ণ। কোনো ম্যাচ সহজ করে দেখার সুযোগ নেই। ভবিষ্যতে বিশ্বকাপ কাপ খেলতে গেলে কোনো সমস্যা হোক এটা চাই না। এজন্য প্রথম থেকে প্রত্যেকটা ম্যাচ অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে দেখছি।’

সভাপতি আরো বলেন, ‘আমাদের সব শক্তিশালী দলের সঙ্গে বাইরে খেলা। আমরা ঘরের মাঠে পাকিস্তান, ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ; সবাইকে কিন্তু ওয়ানডে সিরিজ হারিয়েছি। কিন্তু দেশের বাইরে ম্যাচ জিতেছি কিন্তু সিরিজ জিতেছি কম। সেদিক থেকে চিন্তা করলে এখন প্রত্যেকটা খেলা গুরুত্বপূর্ণ। আমাদেরকে খুব মনোযোগী থাকতে হবে।’