মুশফিকের সেঞ্চুরি

ঢাকা, রবিবার, ২৯ মার্চ ২০২০ | ১৫ চৈত্র ১৪২৬

মুশফিকের সেঞ্চুরি

ক্রীড়া প্রতিবেদক ১২:৩২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২০

print
মুশফিকের সেঞ্চুরি

বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) তৃতীয় রাউন্ডে দুর্দান্ত এক সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন উত্তরাঞ্চলের ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। তবে বল হাতে একাই ৮ উইকেট তুলে নিয়ে দিনের সব আলো কেড়ে নিয়েছেন পূর্বাঞ্চলের মোহাম্মদ নাঈম হাসান।

গতকাল শুক্রবার কক্সবাজারে টস জিতে ব্যাটিং বেছে নেয় উত্তরাঞ্চল। কিন্তু শুরুতে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৬ রানেই ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে দলটি। ৩টি উইকেটই নাঈমের শিকার। এরপর নাঈম ইসলামের সঙ্গে ৫৬ রানের জুটি গড়ে প্রাথমিক ধাক্কা সামাল দেন মুশফিক।

অধিনায়ক নাঈম ৩১ রানের ইনিংস খেলে বিদায় নেওয়ার পর বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি আরিফুল হকও (৪)।

তবে মাহিদুল হাসান অঙ্কনকে নিয়ে ফের ঘুরে দাঁড়ান মুশফিক। দুজনে মিলে যোগ করেন ৭৪ রান। অঙ্কন ২৩ রান করে বিদায় নেওয়ার পর ২০ বল খেলে কোনো রান না করেই বিদায় নেন চোট কাটিয়ে দীর্ঘদিন পর মাঠে ফেরা মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।

অন্যপ্রান্তে উইকেট পতন চলতে থাকলেও এক প্রান্ত আগলে রাখেন মুশফিক। সেই সঙ্গে ১১৭ বলে তুলে নেন অনবদ্য এক সেঞ্চুরি। হাসান মাহমুদের করা ইনিংসের ৬৪তম ওভারের প্রথম বলেই দারুণ এক ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাজিক ফিগারে পৌঁছে যাওয়া মুশি এরপর রান তোলার গতি আরও বাড়িয়ে দেন।

সাইফের পর মুশফিককে সঙ্গ দেন সানজামুল ইসলাম। তবে ৮১তম ওভারে নাঈম হাসানকে তুলে মারতে গিয়ে স্ট্যাম্পিংয়ের শিকার হয়ে বিদায় নেন তিনি (২৯)। হাসান মাহমুদের করা পরের ওভারের তৃতীয় বলে বিদায় নেন মুশফিকও। তবে যাওয়ার আগে দলকে উপহার দিয়ে যান ১৫৭ বলে ১৪০ রানের ইনিংস। ২৪২ মিনিট স্থায়ী ইনিংসটি ১৬টি চার ও ১টি ছক্কায় সাজানো।

মুশফিকের বিদায়ের পরের ওভারেই সালাউদ্দিন শাকিলকে (৩) বিদায় করে উত্তরাঞ্চলের ইনিংস গুটিয়ে দেন নাঈম। শেষ পর্যন্ত ৮ উইকেট তুলে নেওয়া এই অফ-স্পিনার ৩৫.৪ ওভার বল করে খরচ করেছেন ১০৭ রান। বাকি ২ উইকেট হাসান মাহমুদের।

জবাব দিতে নেমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৩ রানেই ২ উইকেট খুইয়ে দিন শেষ করেছে পূর্বাঞ্চল। উত্তরাঞ্চলের চেয়ে এখনো ২৬৯ পিছিয়ে থাকা দলটির দুই ওপেনার পিনাক ঘোষ (৩) ও মোহাম্মদ আশরাফুল (০) ব্যাট হাতে ব্যর্থ হয়েছেন। উইকেট দুটি ভাগ করে নিয়েছেন উত্তরাঞ্চলের সানজামুল ও সঞ্জিত সাহা।

এদিকে দিনের আরেক খেলায় মার্শাল আইয়ুবের সেঞ্চুরির ইনিংসে ভর করে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ২৩৫ রান সংগ্রহ করেছে মধ্যাঞ্চল। দলের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩০ রান এসেছে মোস্তাফিজুর রহমানের ব্যাট থেকে।

বল হাতে দক্ষিণাঞ্চলের মেহেদি হাসান নিয়েছেন ৩ উইকেট। ২টি করে উইকেট গেছে শফিউল ইসলাম, আবদুর রাজ্জাক ও নাসুম আহমেদের ঝুলিতে। বাকি উইকেট ফরহাদ রেজার।

জবাব দিতে নেমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ২৯ রান তুলতেই ২ উইকেট হারিয়েছে দক্ষিণাঞ্চল। এর মধ্যে ১০ রান করে ইরফান হোসেনের বলে বোল্ড হয়ে ফিরেছেন শাহরিয়ার নাফীস। আর ৩ রান করে রান আউটের শিকার হয়েছেন ইরফান শুকুর। মধ্যাঞ্চলের চেয়ে এখনো ২০৬ রানে পিছিয়ে আছে দক্ষিণাঞ্চল।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

নর্থ জোন ১ম ইনিংস : ২৭২ অল-আউট (মুশফিকুর রহিম ১৪০, নাঈম ইসলাম ৮/১০৭)

ইস্ট জোন ১ম ইনিংস : ৩/২ (সানজামুল ১/২, সনজিত ১/০)
ইস্ট জোন ২৬৯ রানে পিছিয়ে (১ম দিন শেষে)