কঠিন শাস্তি পেলেন পুরান

ঢাকা, শনিবার, ৭ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

কঠিন শাস্তি পেলেন পুরান

ক্রীড়া ডেস্ক ৮:৩৯ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১৪, ২০১৯

print
কঠিন শাস্তি পেলেন পুরান

ওয়ানডে সিরিজে আফগানিস্তানকে ধবলধোলাই করেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তাতে নিকোলাস পুরানের অবদান অনস্বীকার্য। দ্বিতীয় ম্যাচে ঝড়ো হাফসেঞ্চুরি করে সেরার স্বীকৃতি জিতেছেন তিনি। সিরিজে তিন ম্যাচ মিলিয়ে করেছেন ৯৬ রান। ক্যারিবীয়রা সিরিজ জিতে নিয়েছে ৩-০ ব্যবধানে।

শুধু উইকেটের সামনেই নয়, পেছনেও আলো ছড়িয়েছেন পুরান। সেখানেই বাঁধিয়েছেন বিপত্তি। গ্লাভস খুলে নখ দিয়ে বল খুটেছেন। তাতে বলের আকৃতি কিছুটা হলেও বিকৃত হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই বল টেম্পারিংয়ের মতো গুরুতর অভিযোগ উঠল তার বিরুদ্ধে। কাল তাকে কঠিন শাস্তি দিয়েছে আইসিসি।

আজ লখনৌতে শুরু হচ্ছে আফগানিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ। এই সিরিজে খেলতে পারবেন না পুরান। কুড়ি ওভারের চার ম্যাচের জন্য তাকে নিষিদ্ধ করেছে আইসিসি। আইসিসির আচরণবিধির লেভেল ৩ ভাঙার দায়ে এই শাস্তি পেয়েছেন পুরান। এই পর্যায়ের অন্যায়ে শাস্তি দুটি টেস্ট বা সীমিত ওভারের চার ম্যাচ নিষিদ্ধ হওয়া। এক্ষেত্রে সামনে যে সংস্করণ থাকবে সেই ম্যাচ থেকেই শাস্তি শুরু হবে। তাই টি-টোয়েন্টি ম্যাচে দিয়েই নির্বাসনে যেতে হলো পুরানকে।

আফগানদের বিরুদ্ধে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে বল টেম্পারিং করেছেন পুরান। ভিডিও ফুটেজে দেখা যায় বুড়ো আঙ্গুলের নখ দিয়ে বলে আঁচড় কাটছেন ক্যারিবীয় উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান।

টি-টোয়েন্টি সিরিজ শুরুর আগ মুহূর্তে পুরানের নিষেধাজ্ঞা বড়সড়ো একটা একটা ধাক্কা হয়েই এলো ওয়েস্ট ইন্ডিজের জন্য। আফগান সিরিজ শেষে ভারতের বিরুদ্ধে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচেও খেলতে পারবেন না তিনি। শাস্তি আরো আছে। পুরানের নামের পাশে যুক্ত করা হয়েছে ৫ ডিমেরিট পয়েন্ট।

নিজের অন্যায়টা বুঝতে পেরেছেন ক্যারিবীয় তারকা। দোষ স্বীকার করে শাস্তি মেনে নিয়েছেন তিনি। একই সঙ্গে সবার কাছে নিজের অপকর্মের জন্য ক্ষমা চেয়েছেন।

ভবিষ্যতে এর পুনরাবৃত্তি ঘটবে না বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। এই ভুল থেকে শিক্ষা নেবেন বলে অঙ্গীকার করেছেন পুরান।