ঢাকা, শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ২০১৮ | ১ ভাদ্র ১৪২৫
মহারণের মহাযাত্রা
ডেস্ক রিপোর্ট
Published : 2018-06-14 22:19:00
মহারণের মহাযাত্রা

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের শুরুতেই একটুখানি প্রযুক্তির চমক। মহকাশ থেকে নেমে এলো ফুটবল। 

রাশিয়া হয়তো মনে করিয়ে দিতে চাইল, স্পুৎনিক-১ নামের বিশ্বের প্রথম কৃত্রিম উপগ্রহটি তারাই মহাকাশে পাঠিয়েছেন। কিন্তু তারপর সাড়ে ৮টায় শুরু হয়ে প্রায় আধা-ঘণ্টাব্যাপী যে অনুষ্ঠান হয়েছে সেটা হয়তো অলিম্পিকের মতো মহাআড়ম্বরের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান নয় তারপরও মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে রাশিয়া বিশ্বকাপ ফুটবলের সংক্ষিপ্ত কিন্তু জৌলুসপূর্ণ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানই সবার নজর কেড়েছে।
স্টেডিয়ামের মাঝখানে ফুটবলের আদলে বানানো মঞ্চে বিশ্বকাপের থিম সং ‘লিভ ইট আপ’ নিয়ে উঠে আসলেন রবি উইলিয়ামস। ব্রিটিশ এই সংগীত শিল্পীর গানের তালে শুরু হয় উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। তার গানের মাঝেই হাজির রাশিয়ান অপেরা শিল্পী আইদা গারিফুল্লিনা। রাশিয়ান তরুণ-তরুণীদের হৃদয়ে ঝড় তোলা এই শিল্পী তার অপেরা জাদুতে মুগ্ধ করলেন বিশ্বকে। পরে রবি উইলিয়ামসের সঙ্গে ডুয়েটও গাইলেন তিনি। তাদের গানের মাঝেই রাশিয়ান সংস্কৃতির কিছুটা ঝলক মিললো সহ-শিল্পীদের পারফরম্যান্সে। থাকল বিভিন্ন কোরিওগ্রাফিক প্রদর্শনীও।
পরক্ষণেই লুঝনিকি স্টেডিয়ামের দর্শকদের চিৎকার ধ্বনি আরও কয়েক মাত্রা উঁচুতে উঠেছে। কারণ স্টেডিয়ামে প্রবেশ করেছেন ১৯৯৪ আর ২০০২ বিশ্বকাপজয়ী ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি রোনালদো। হাত নেড়ে দর্শকদের অভিবাদনের জবাব দিলেন তিনি। একইসঙ্গে মাঠে চলছে ৫০০ নৃত্যশিল্পীর নান্দনিক প্রদর্শনী, যাতে রাশিয়ার ইতিহাস ও ঐতিহ্যের প্রকাশ ঘটছে। শিল্পীদের দুরন্ত ছন্দের নৃত্য আর লেজার রশ্মির ঝলকানি মিলে তৈরি হয়েছিল মনকাড়া পরিবেশ। ছিল ফুটবল নিয়ে কারিকুরিও।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠান নিয়ে আগেই উচ্ছ¡াস প্রকাশ করেছেন ব্রাজিল কিংবদন্তি রোনালদো, ‘এটা এমন একটি মুহূর্ত, যখন আপনি বুঝতে পারেন, মুহূর্তটির জন্য একজন ফুটবলপ্রেমী কিংবা একজন ফুটবলারকে চার বছর ধরে অপে¶া করতে হয়েছে। অবশ্যই এটা আয়োজক রাশিয়ার জন্য আবেগের একটি মঞ্চ।’
রাশিয়ান গায়িকা আইদা গারিফুল্লিনা জানান, ‘আমি কখনো ভাবিনি এমন একটা অনুষ্ঠানের অংশ হতে পারব। সেটাও আবার আমার নিজের দেশ রাশিয়ায়! এটা আমার জন্য অনেক বড় একটি পাওয়া। বিষয়টি উপভোগ করেছি।’
এবারের বিশ্বকাপে মোট প্রাইজমানি ৪০০ মিলিয়ন ডলার। অংশগ্রহণকারী প্রতিটি দলই টুর্নামেন্টে তাদের অবস্থান অনুযায়ী, প্রাইজমানি পাবে। এর মধ্যে চ্যাম্পিয়ন দল প্রাইজমানি হিসেবে পাবে ৩৮ মিলিয়ন ডলার তথা তিন কোটি ৮০ লাখ ডলার। আর রানারআপ দল পাবে ২৮ মিলিয়ন ডলার তথা দুই কোটি ৮০ লাখ ডলার। তৃতীয় স্থান অর্জনকারী দল পাবে ২৪ মিলিয়ন ডলার। চতুর্থ স্থান অর্জনকারী দল পাবে ২২ মিলিয়ন ডলার।
যারা কোয়ার্টার ফাইনাল পর্ব থেকে বিদায় নিবে তারা পাবেন ১৬ মিলিয়ন ডলার করে। আর দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নেওয়া দলগুলো পাবে ১২ মিলিয়ন ডলার করে। গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নেওয়া প্রতিটি দল পাবে আট মিলিয়ন ডলার করে।




সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক ও প্রকাশক
মো. আহসান হাবীব
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক
ড. কাজল রশীদ শাহীন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত খোলাকাগজ ২০১৬
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: বসতি হরাইজন ১৮/বি, হাউজ-২১, রোড-১৭, বনানী বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১২১৩।
ফোন : +৮৮-০২-৯৮২২০২১, ৯৮২২০২৯, ৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৬, ৯৮২২০৩৭, ফ্যাক্স: ৯৮২১১৯৩, ই-মেইল : editorkholakagoj@gmail.com    kholakagojnews@gmail.com
Developed & Maintenance by Khola Kagoj IT Team. Email : rafiur@poriborton.com
var _Hasync= _Hasync|| []; _Hasync.push(['Histats.start', '1,3452539,4,6,200,40,00010101']); _Hasync.push(['Histats.fasi', '1']); _Hasync.push(['Histats.track_hits', '']); (function() { var hs = document.createElement('script'); hs.type = 'text/javascript'; hs.async = true; hs.src = ('//s10.histats.com/js15_as.js'); (document.getElementsByTagName('head')[0] || document.getElementsByTagName('body')[0]).appendChild(hs); })();