নজরুলের ব্যঙ্গ

ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৮ | ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

গল্পগুলো বিখ্যাতদের

নজরুলের ব্যঙ্গ

ডেস্ক রিপোর্ট ১০:১৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১১, ২০১৮

print
নজরুলের ব্যঙ্গ

লোকের নাম নিয়ে ব্যঙ্গ করতেন নজরুল। তখনকার নূর লাইব্রেরির মঈনুদ্দীন হোসেনকে তিনি বলতেন, ‘রয়টার’। কারণ, হোসেন সাহেব যে কোনো খবর সবার আগে কলকাতার সব পত্রিকা অফিসে দিয়ে আসতেন। নজরুলের বন্ধু ‘মোসলেম ভারত’-এর আফজাল-উল-হককে তিনি ডাকতেন ‘ডাবজল’ বলে।

‘শনিবারের চিঠি’র সজনীকান্ত দাসকে তিনি বলতেন, ‘সজনে ঘণ্ট খাস’। মোহাম্মদী ও সওগাতের দ্বন্দ্ব যখন চরমে, নজরুলকে মোহাম্মদী যখন ‘আজাজীল’ আখ্যা দেয়, তখন নজরুল আকরম খাঁর নাম দিয়েছিলেন ‘বাগরম খাঁ’। মোহম্মদ ওয়াজেদ আলীকে তিনি ডাকতেন ‘বুড়ো’ বলে। কারণ তিনি যুবক হয়েও বুড়োদের মতো যুক্তিতর্ক ছাড়া কথা বলতেন না। বিজলী ধর নামে কবির এক ভক্ত অটোগ্রাফ নিতে এলে তিনি লিখে দিলেন ‘বি-জলি’। আসলে ‘বি-জলি’ এ কথাটি ইংরেজিতে লিখলে অর্থ হয়, ইব লড়ষষু অর্থাৎ হাসিখুশির মধ্যে থাকো!