গুগলকে জরিমানা করার কারণ

ঢাকা, সোমবার, ৩ অক্টোবর ২০২২ | ১৮ আশ্বিন ১৪২৯

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

গুগলকে জরিমানা করার কারণ

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
🕐 ৭:৩৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৪, ২০২২

গুগলকে জরিমানা করার কারণ

অস্ট্রেলিয়ান কম্পিটিশন অ্যান্ড কনজিউমার কমিশন (এসিসিসি) এর অভিযোগের ভিত্তিতে সম্প্রতি দেশটির ফেডারেল আদালত অবৈধভাবে ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য সংগ্রহের অভিযোগে গুগলকে ৬ কোটি ডলার জরিমানা করেছে।

 

এসিসিসি অভিযোগ ছিল- ব্যবহারকারীদের বিভ্রান্ত করে তাদের ব্যক্তিগত অবস্থানগত তথ্য সংগ্রহ করে গুগল। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে কেবল ‘লোকেশন হিস্ট্রি’ সেটিংসের মাধ্যমে ব্যক্তিগত লোকেশন ডাটা সংগ্রহ করা সম্ভব, এমনটা একেবারেই ঠিক নয়। ফোনের লোকেশন হিস্ট্রি ফিচার বন্ধ রাখলেও ব্যবহারকারীর অবস্থানের তথ্য ট্র্যাক করে গুগল।

ডিভাইস থেকে ব্যবহারকারীর ইন্টারনেট এবং বিভিন্ন অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপের মাধ্যমেও ব্যবহারকারীর লোকেশন ডাটা সংগ্রহ করা হয়। ব্যবহারকারীর লোকেশন ডাটা সক্রিয়ভাবেই সংগ্রহ করে জমা রাখে বিভিন্ন অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ। ফলে ব্যবহারকারীর অজান্তেই নানা অ্যাপের মাধ্যমে তাঁদের ‘লোকেশন হিস্ট্রি’ সংরক্ষণ করা হয়।

অভিযোগে আরো বলা হয়- গুগলের অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমের মাধ্যমে এই বিভ্রান্তি তৈরি করা হয়।

এর সপক্ষে আদালতে প্রমাণ দাখিল করে এসিসিসি। পাশাপাশি ভোক্তা বিভ্রান্তি বিষয়ে আরও দুটি অভিযোগও প্রমাণিত হয় গুগলের বিরুদ্ধে।

রায়ে আদালত বলেন, গুগলের এ ধরনের কার্যক্রম ভোক্তা অধিকারকে সম্পূর্ণরূপে লঙ্ঘন করে। এটি অন্যায়।

এসিসিসির ধারণা, অস্ট্রেলিয়ার কয়েক লাখ গুগল অ্যাকাউন্ট ব্যবহারকারী এতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন।

 
Electronic Paper