সুন্দরগঞ্জে কারিগরি প্রশিক্ষণ শেষে সংবর্ধনা-সনদপত্র হস্তান্তর

ঢাকা, রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | ১৬ ফাল্গুন ১৪২৭

সুন্দরগঞ্জে কারিগরি প্রশিক্ষণ শেষে সংবর্ধনা-সনদপত্র হস্তান্তর

সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি ৮:০১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৮, ২০২১

print
সুন্দরগঞ্জে কারিগরি প্রশিক্ষণ শেষে সংবর্ধনা-সনদপত্র হস্তান্তর

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিতে তিন ও ছয় মাস মেয়াদি কম্পিউটার বিষয়ে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ২'শ ৩৩ জন শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা ও সনদপত্র প্রদান করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার বামনডাঙ্গা আইটি ইন্সটিটিউটের আয়োজনে এসব প্রশিক্ষণার্থীদের আনুষ্ঠানিক সনদপত্র বিতরণ ও সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

এছাড়াও শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে সামাজিক অবক্ষয় নিয়ে একটি বিশেষ নাটিকা ও কুইজ প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠান শেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরুষ্কার বিতরন করেন অতিথিরা।

অনুষ্ঠানে বামনডাঙ্গা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বামনডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নজমুল হুদা।

এতে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন- বামনডাঙ্গা আব্দুল হক ডিগ্রী কলেজের প্রভাষক আজাদুল ইসলাম, প্রভাষক রাকীব মোহাম্মদ হাদিউল ইসলাম, বামনডাঙ্গা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আব্দুর রাজ্জাক, সহকারী প্রধান শিক্ষক মাহবুবুর রহমান, আইসিটি শিক্ষক সৌমিত্রনাথ চক্রবর্তী মিঠু, বামনডাঙ্গা আইটির পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার রেজাউল ইসলাম বাদল, ফয়সাল সাকিদার আরিফ ও কালের কন্ঠের প্রতিনিধি শেখ মামুন-উর-রশিদ প্রমূখ।

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সাহাবুল ইসলাম ও জাহিদ হাসান। অনুষ্ঠানে বামনডাঙ্গা আইটির প্রশিক্ষণার্থী, অভিভাবক ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি কালের কন্ঠে প্রকাশিত বগুড়া প্রতিনিধির "বিষ্ময় বালকের অপরাধ দুনিয়া" শীর্ষক প্রতিবেদনটির বিষয় উপস্থাপন করেন এক বিশেষ অতিথি। এতে তথ্য যোগাযোগ ও প্রযুক্তির ক্ষতিকর দিক থেকে নিজেকে দুরে রাখতেই এই প্রতিবেদনটির উদাহরণ হিসেবে উপস্থাপন করা হয়। যাতে প্রযুক্তিগত মেধার ব্যবহার অপরাধে না জড়িয়ে যায়।