বগুড়ায় সেপটিক ট্যাংকে নেমে ২ শ্রমিকের মৃত্যু

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৯ | ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বগুড়ায় সেপটিক ট্যাংকে নেমে ২ শ্রমিকের মৃত্যু

বগুড়া ব্যুরো ৭:৪৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২০, ২০১৯

print
বগুড়ায় সেপটিক ট্যাংকে নেমে ২ শ্রমিকের মৃত্যু

বগুড়ার ধুনটে একটি বাড়ির ল্যাট্রিনের সেপটিক ট্যাংকের ভেতরে নেমে কাজ করার সময় গ্যাসের বিষক্রিয়ায় দুই নির্মাণ শ্রমিক মারা গেছেন। রোববার উপজেলার নিমগাছি ইউনিয়নের নাংলু গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- বগুড়ার গাবতলী উপজেলার বালিয়াদীঘি ইউনিয়নের তোল্লাতলা গ্রামের তাজেম মণ্ডলের ছেলে মিনহাজুল ইসলাম (৩৫) ও একই গ্রামের সৈয়দ আলীর ছেলে মহিদুল ইসলাম (৩২)।

ধুনট থানার ওসি ইসমাইল হোসেন এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, ধুনট উপজেলার নাংলু গ্রামের বেলাল আকন্দের বাড়িতে ল্যাট্রিনের সেপটিক ট্যাংকের কাজ চলছিল। রোববার সকালে সেপটিক ট্যাংকের শার্টারের বাঁশ ও কাঠ খুলতে নির্মাণ শ্রমিক মিনহাজুল ইসলাম ও মহিদুল ইসলাম ভেতরে নামে। কিছুক্ষণ পর তাদের কথা শোনা যাচ্ছিল না।

পরে স্থানীয়রা সেপটিক ট্যাংক ভেঙে দুই শ্রমিককে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করেন। তাদের বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার চেষ্টা করলে পথিমধ্যে তারা মারা যান।

ধুনট থানার ওসি ইসমাইল হোসেন ও এসআই প্রদীপ কুমার জানান, সেপটিক ট্যাংকের মুখ বন্ধ থাকায় ভেতরে বিষাক্ত গ্যাসের সৃষ্টি হয়েছিল। এ অবস্থায় দুই শ্রমিক ভিতরে নামলে গ্যাসের বিষক্রিয়ায় শ্বাসরোধ হয়ে তাদের মৃত্যু হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।