বগুড়ায় সুস্থ আছেন সেই ফাহিমা

ঢাকা, শনিবার, ৩০ মে ২০২০ | ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

বগুড়ায় সুস্থ আছেন সেই ফাহিমা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া ১২:১৪ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ০৫, ২০২০

print
বগুড়ায় সুস্থ আছেন সেই ফাহিমা

বগুড়ায় শিকল বন্দী থেকে মুক্তি পাওয়া শিবগঞ্জ উপজেলার আটমূল আওরাপাড়ার মানষিক প্রতিবন্ধী নারী ফাহিমা খাতুন এখন সুস্থ আছেন। বসবাস করছেন তার এক ভাইয়ের বাড়িতে। অসুস্থ বোধ করলে বা মানষিক ভারসাম্য ক্ষতিগ্রস্ত হলে নিজ খরচে পাবনা মানষিক হাসপাতালে পাঠানো হবে। গত শনিবার শিবগঞ্জ থানার ওসি মিজানুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, স্বামী দ্বিতীয় বিয়ে করায় প্রায় ৭ বছর আগে ফাহিমা খাতুন বাবার বাড়িতে চলে আসেন। এরপর থেকে মায়ের সঙ্গেই বসবাস করে আসছেন তিনি।

মা মেহেরুন বেওয়া জানান, কিছুদিন আগে থেকে মেয়ে ফাহিমা অস্বাভাবিক আচরণ শুরু করে এবং ঘরের জিনিসপত্র ভাঙচুর করে। এজন্য তাকে ১০ দিন আগে ঘরের মেঝেতে খাটের সঙ্গে শিকল দিয়ে হাত-পা বেঁধে রাখা হয়। শিকল বাধা অবস্থাতেই তাকে খাওয়া-দাওয়া ও ঘুমানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে।

তবে নির্যাতনের শিকার ফাহিমা খাতুন জানান, ‘বাড়িতে বসে বসে খাওয়ার কারণে মা শুধু আমাকে মারধর করেন। মারধর ঠেকাতে গেলে ঘরের দুই একটা জিনিসপত্র ভেঙে গেছে।

একই বাড়িতে বসবাসকারী ফাহিমার চাচাতো ভাই শাহ আলম জানান, ফাহিমা পাগল নয়, অযৌক্তিক ভাবে চাচী (ফাহিমার মা) রাগ করে তাকে শিকল দিয়ে বেঁধে রেখেছিল’।

চলতি মাসের ২ তারিখ রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছবি দেখে ইউএনও বিষয়টি সম্পর্কে অবগত হয়ে পরদিন গত শুক্রবার পুলিশ পাঠিয়ে তাকে শিকলবন্দী দশা থেকে মুক্ত করেন শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আলমগীর কবীর।

তিনি জানান, যদি ঐ নারী সত্যিকারের মনসিক প্রতিবন্ধী হয়ে থাকে তাহলে তাকে সুচিকিৎসাসহ প্রয়োজনীয় সরকারি ভাতার ব্যবস্থা করা হবে।