খাদ্যবান্ধব কার্ড বাতিল, ইউপি অফিসে তালা

ঢাকা, রবিবার, ৭ জুন ২০২০ | ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

খাদ্যবান্ধব কার্ড বাতিল, ইউপি অফিসে তালা

হাসান বাপ্পি, ঠাকুরগাঁও ৪:০৭ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৯, ২০২০

print
খাদ্যবান্ধব কার্ড বাতিল, ইউপি অফিসে তালা

ঠাকুরগাঁওয়ে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির তালিকা থেকে সাত শতাধিক ব্যক্তির নাম বাতিলের অভিযোগে চেয়ারম্যানের কক্ষে তালা লাগিয়েছে বঞ্চিতরা। রোববার ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে বিক্ষোভ প্রদর্শণ করে তারা। পরে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা গিয়ে পরিস্থতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, ওই ইউনিয়নের কয়েকটি ওয়ার্ডে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির সাত শতাধিক কার্ড নিয়ম না মেনে বাতিল করে দেন চেয়ারম্যান। বঞ্চিতরা গতকাল ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে চাল আনতে গেলে ইউপি চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন আলাল মাস্টার তাদেরকে কার্ড বাতিলের কথা বলে তাড়িয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেন। পরে বঞ্চিতরা একত্রিত হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে চেয়ারম্যানের কক্ষে তালা লাগিয়ে দেন।

এ ব্যাপারে ওয়ার্ড কাউন্সিলর বাবুল জানান, নিয়ম নীতি না মেনে গোপনে চেয়ারম্যান ও কয়েকজন মেম্বার যোগসাজশ করে সাতশ’রও বেশি কার্ড বাতিল করেছেন। তারা নতুন ব্যক্তিদের কাছে এক থেকে দেড় হাজার করে টাকা নিয়ে এ কার্ড প্রদান করেছেন।

জগন্নাথপুর সিংগিয়া গ্রামের কার্ড বঞ্চিত জয়ন্ত ঘোষ বলেন, কার্ড নিয়ে চাল নিতে আসার পর চেয়ারম্যান জানান আমাদের কার্ড বাতিল করা হয়েছে। এ কার্ডটি যখন করে দেয় তখন স্থানীয় মহিলা মেম্বার মালেকা বেগমকে ৫শ টাকা দিয়ে কার্ডটি গ্রহণ করতে হয়েছিল।

বিক্ষোভকারী মনোয়ারা বেগম, রিনি বালা, মরিয়ম বেগম, ফাতেমা বেগম, তহুরা খাতুন একই কথা বলেন। তারা দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে বলেন, আমরা গরীব ও অসহায় মানুষ। ১০ কেজি করে চাল নিয়ে আমাদের সংসার চলতো। কিন্তু অনিয়ম করে এভাবে কার্ড বাতিলের কারণে আমরা খুবই সমস্যায় ভুগবো। প্রতিবন্ধী সাইদুল ইসলাম কার্ড বাতিলের কথা শুনে কান্নায় ভেঙে পড়েন।

এ ব্যাপারে জগন্নাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন আলাল মাস্টার বলেন, নিয়ম মেনেই কিছু মানুষের নাম বাতিল করা হয়েছে।

একই বাড়িতে যারা প্রতিবন্ধী, বয়স্ক, বিধবা ভাতা পান- এ ধরণের পরিবারের একজন লোকের নামের কার্ড বাতিল করা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, আমরা পরিষদে গিয়ে বাতিলের কাগজপত্র যাচাই-বাছাই করেছি। নিয়ম-নীতি মানা হয়নি। রেজুলেশনেও ভুল পাওয়া গেছে। এ কারণে পূর্বের তালিকাভুক্ত ব্যক্তিদেরকেই চাল প্রদান করা হবে।