এবার স্বাধীনতা চেয়ে রাজপথে হংকংবাসী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ৯:১৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ০৭,২০১৯

হংকংয়ে বিতর্কিত প্রত্যর্পণ বিল প্রত্যাহার করা হলেও রাজপথে প্রতিবাদ অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছে বিক্ষোভকারীরা। চীনের বিশেষ প্রশাসনিক এ অঞ্চলটির স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রের দাবিতে এবার রাজপথে নামবে আন্দোলনকারীরা। বিবিসি এবং দ্য গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনের বরাতে এ তথ্য জানা গেছে।

গত বুধবার বিলটি প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন হংকংয়ের প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম। এরপর থেকেই বিক্ষোভকারীরা স্বাধীনতা এবং গণতন্ত্রের দাবিতে রাজপথ আবার দখলে নিয়েছে।

এদিকে, চীনের সমর্থন নিয়েই প্রত্যর্পণ বিল প্রত্যাহার করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেন লাম। বিষয়টি চীনের কমিউনিস্ট সরকার ‘বুঝতে পেরেছে, শ্রদ্ধা করেছে ও সমর্থন দিয়েছে’ বলেও জানিয়েছেন লাম। খবর বিবিসি ও দ্য গার্ডিয়ানের। বিতর্কিত এ প্রত্যর্পণ বিলটিকে হংকংয়ের ওপর চীনের পূর্ণাঙ্গ নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার নজির হিসেবে দেখা হচ্ছিল। টানা কয়েক মাস ধরে প্রতিবাদ চলছে শহরটিতে।

বুধবার প্রশাসন বিলটি প্রত্যাহারের কথা জানালেও আন্দোলনকারীদের ক্ষোভকে প্রশমিত করবে না বলেই ধারণা করা হচ্ছে। সরকার অনেক দেরিতে এ পদক্ষেপ নিয়েছে বলে ক্ষোভ জানিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা। আর বিলটি প্রত্যাহার করা হলেও বিক্ষোভ চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন আন্দোলনকারীরা।

হংকংয়ের গণতন্ত্রকামী নেতা জশুয়া অং বলেন, গত কয়েক সপ্তাহে বিক্ষোভকারীদের ওপর পুলিশের বর্বরতা হংকংয়ের সমাজে এক অপরিবর্তনীয় দাগ লেপ্টে দিয়েছে। আর এ কারণেই বহু মানুষ বিশ্বাস করে না যে, বিলটি প্রত্যাহারের পেছনে কোনো সৎ মতলব রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, চীনের জনগণ এটা বুঝতে পেরেছে যে, গণতন্ত্র, স্বাধীনতা ও মানবাধিকারের বৈশ্বিক মূল্য রয়েছে, যার জন্য সংগ্রাম করছে হংকংয়ের মানুষ। আমরা এ সংগ্রাম চালিয়ে যাব। আমি আশা করি, এমন একদিন আসবে যেদিন চীন ও হংকং এমন একটি স্থান হবে, যেখানে মানুষ গণতন্ত্র ও স্বাধীনতা ভোগ করবে।

সম্পাদক : ড. কাজল রশীদ শাহীন
প্রকাশক : মো. আহসান হাবীব

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : বসতি হরাইজন, ১৭-১৮-বি, বাড়ি-২১, সড়ক-১৭, বনানী, ঢাকা
ফোন : বার্তা-৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৭, মফস্বল-৯৮২২০৩৬
বিজ্ঞাপন-৯৮২২০২১, ০১৭৮৭ ৬৯৭ ৮২৩,
সার্কুলেশন-৯৮২২০২৯, ০১৮৫৩ ৩২৮ ৫১০
Email: editorkholakagoj@gmail.com
            kholakagojnews7@gmail.com