কংগ্রেসের সভাপতি ‘আপাতত’ সোনিয়া গান্ধীই

আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ৯:৪৪ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ১১,২০১৯

ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকেও সভাপতি ঠিক করতে পারল না কংগ্রেস। ভারতীয় জাতীয় কংগ্রসের সভাপতি পদে সোনিয়া গান্ধীকেই আবার ফিরতে হলো। শনিবার সন্ধ্যায় দলের শীর্ষ নেতৃত্বের উপস্থিতিতে দিল্লিতে বৈঠকে বসে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির। সেখানেই তাকে এ দায়িত্ব দেয়া হয়।

কংগ্রেস সূত্রে জানা গেছে, রাহুল গান্ধীকে ফিরে পেতে আগ্রহী ছিলেন বৈঠকে উপস্থিত শীর্ষ নেতাদের একাংশ। কিন্তু পদত্যাগপত্র তুলে নিতে রাজি হননি রাহুল। এমন অবস্থায় রাজীব পত্নীর দ্বারস্থ হন দলের নেতারা। যতদিন পর্যন্ত না রাহুলের বিকল্প পাওয়া যাচ্ছে, ততদিন পর্যন্ত তাকে দায়িত্ব নিতে অনুরোধ করা হয়। তাদের অনুরোধে না করতে পারেননি সোনিয়া। তারপরই দীর্ঘদিন ধরে পড়ে থাকা রাহুল গান্ধীর পদত্যাগপত্র গৃহীত হয়।

সোনিয়া গান্ধীর কাছ থেকে কংগ্রেসের দায়িত্ব কাঁধে নিয়েছিলেন রাহুল গান্ধী। তবে গত লোকসভা ভোটে বিপর্যয়ের পর কংগ্রেস সভাপতির পদ থেকে ইস্তফা দেন রাহুল গান্ধী। সেই সময় কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি তাঁকে সর্বসম্মতভাবে ইস্তফা দিতে বিরত হতে বললেও তা শোনেননি রাহুল গান্ধী। তিনি সভাপতির পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার বিষয়ে অনড় থাকেন।

শনিবার রাতে কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে অন্তর্বতী সভানেত্রী হিসেবে সোনিয়া গান্ধীকে বেছে নেওয়া হয়। ওয়ার্কিং কমিটির এ সিদ্ধান্ত মেনে নেন সোনিয়া গান্ধীও।

কংগ্রেসের মুখপাত্র রণদীপ সুরজেওয়ালা বলেন, ‘রাহুল গান্ধীর অভূতপূর্ব নেতৃত্বের জন্য তাঁর প্রশংসা করেছে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটি। সভাপতি হিসেবে অক্লান্ত পরিশ্রম করেছেন তিনি। প্রতি মুহূর্তে দেশের কৃষক, ছোট ব্যবসায়ী, সংখ্যালঘু নারী, আদিবাসী ও সমাজের গরিব মানুষের কণ্ঠস্বর হয়ে উঠেছেন তিনি। ভারতের মাটিতে হিংসার পরিবেশের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছেন রাহুল গান্ধী। কংগ্রেসকে এক নতুন দিশা দেখিয়েছেন তিনি। সমাজের বঞ্চিত ও শোষিত মানুষদের আলো হয়ে উঠেছেন তিনি।’

শনিবার সকালে কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি বৈঠকে বসলেও সভাপতি বাছতে পারেনি। এরপর রাত ৮টায় আবার বৈঠকে বসে কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি। নতুন সভাপতি বাছার জন্য ওয়ার্কিং কমিটিকে পাঁচটি ছোট কমিটিতে ভাঙা হয়। এরপর প্রত্যেক কমিটিকে দলের বিভিন্ন অংশের সঙ্গে কথা বলে রাত ৮টার মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়। সে সময় সভাপতির পদ নিয়ে আলোচনায় বৈঠক ছেড়ে চলে যান সোনিয়া গান্ধী ও রাহুল গান্ধী।

তারপর কংগ্রেসের সভাপতি হিসেবে নাম উঠে আসে সোনিয়া গান্ধীর ঘনিষ্ঠ মুকুল ওয়াসনিক এবং মল্লিকার্জুন খাড়গের নামও। তবে শেষ পর্যন্ত কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি চূড়ান্ত করতে পারেনি পরবর্তী স্থায়ী সভাপতির নাম। ফলে স্থগিত হয়ে যায় কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচন। শেষমেশ সোনিয়া গান্ধীকে বেছে নেওয়া হয় কংগ্রেসের অন্তর্বতী সভাপতি হিসেবে।

সম্পাদক : ড. কাজল রশীদ শাহীন
প্রকাশক : মো. আহসান হাবীব

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : বসতি হরাইজন, ১৭-১৮-বি, বাড়ি-২১, সড়ক-১৭, বনানী, ঢাকা
ফোন : বার্তা-৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৭, মফস্বল-৯৮২২০৩৬
বিজ্ঞাপন-৯৮২২০২১, ০১৭৮৭ ৬৯৭ ৮২৩,
সার্কুলেশন-৯৮২২০২৯, ০১৮৫৩ ৩২৮ ৫১০
Email: editorkholakagoj@gmail.com
            kholakagojnews7@gmail.com