দুই লাখে অপোস

নড়াইল প্রতিনিধি / ৪:৩৬ অপরাহ্ণ, জুলাই ০৭,২০১৯

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার লক্ষ্মীপাশায় মা ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুর ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। দুই লাখ টাকায় মৃত্যুর ঘটনাটি আপোস হয়েছে বলে গুঞ্জন উঠেছে। গতকাল শনিবার সকালে লাশের ময়নাতদন্ত ছাড়াই দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

অপরদিকে এ ঘটনায় গতকাল শনিবার সকাল ১১টায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুকুল কুমার মৈত্র ওই ক্লিনিক পরিদর্শন করে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

এছাড়া ক্লিনিকের ওটি রুমের সব মালামাল জব্দসহ ওটি রুম সিলগালা করে দেন। দুদিন পর স্থায়ীভাবে ওই ক্লিনিক বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে তিনি ঘোষণা দেন।

স্থানীয়রা জানান, লোহাগড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুকুল কুমার মৈত্র শনিবার সকালে বিতর্কিত ক্লিনিকের মালিক শেখ জাহাঙ্গীর আলমকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

লোহাগড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোকাররম হোসেন বলেন, কোনো অভিযোগকারী না থাকায় ময়নাতদন্ত ছাড়াই লাশ নিহতের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

গত ৫ জুলাই সকাল ১০টার দিকে প্রসব বেদনা নিয়ে উপজেলার কোটাকোল ইউপির করগাতী গ্রামের কাঠ ব্যবসায়ী কামাল শেখের স্ত্রী বিলকিস বেগমকে মা ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়া হয়। ক্লিনিকের চিকিৎসক তাজরুল ইসলাম তাজ প্রসব বেদনার জন্য বিলকিসকে একটি ইনজেকশন দেন। ইনজেকশন দেওয়ার পর তিনি মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে তাকে অ্যাম্বুলেন্সে নড়াইল সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। স্বজনদের অভিযোগ, ভুল চিকিৎসায় তার মৃত্যু হয়েছিল।

সম্পাদক : ড. কাজল রশীদ শাহীন
প্রকাশক : মো. আহসান হাবীব

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : বসতি হরাইজন, ১৭-১৮-বি, বাড়ি-২১, সড়ক-১৭, বনানী, ঢাকা
ফোন : বার্তা-৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৭, মফস্বল-৯৮২২০৩৬
বিজ্ঞাপন-৯৮২২০২১, ০১৭৮৭ ৬৯৭ ৮২৩,
সার্কুলেশন-৯৮২২০২৯, ০১৮৫৩ ৩২৮ ৫১০
Email: editorkholakagoj@gmail.com
            kholakagojnews7@gmail.com