নতুন জোটে নেতৃত্বে আসছেন সাকি-নুর

ঢাকা, রবিবার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১ | ৪ মাঘ ১৪২৭

নতুন জোটে নেতৃত্বে আসছেন সাকি-নুর

নিজস্ব প্রতিবেদক ১০:০৫ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ০২, ২০২০

print
নতুন জোটে নেতৃত্বে আসছেন সাকি-নুর

বর্তমানে আলাদা সংগঠনের নেতৃত্ব দিলেও নতুন জোট করার চিন্তা-ভাবনা করছেন গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের সাবেক ভিপি ও বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নুর। সম্ভাব্য ওই জোটে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীসহ আরও কয়েকজন ব্যক্তি ও সংগঠনের নামও আলোচনায় রয়েছে।

জানা গেছে, চূড়ান্তভাবে দল করার আগে যৌথভাবে কর্মসূচি পালন করবেন তারা। ইতিমধ্যে গত ২৮ নভেম্বর জাতীয় শহীদ মিনারে মওলানা ভাসানীর মৃত্যুবার্ষিকীকে কেন্দ্র করে তারা একটি যৌথ সমাবেশ করেছেন। সে সমাবেশে মওলানা ভাসানী অনুসারী পরিষদ, গণসংহতি আন্দোলন, ছাত্র-যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদ ও রাষ্ট্র চিন্তা একসঙ্গে অংশ নেয়।

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি বলেন, আমরা মূলত দেশের স্বার্থে বৃহৎ আন্দোলন, সংগ্রাম কীভাবে চালিয়ে নেওয়া যায় সে বিষয়ে আলোচনা করছি। এখনো জোট গঠনের কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তিনি আরও বলেন, আমরা জাতীয় শহীদ মিনারে মওলানা ভাসানীর মৃত্যুবার্ষিকীকে কেন্দ্র করে সমাবেশ করি। তবে জোট গঠনের বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত নেইনি। আমরা আন্দোলনকে বেগবান করতে সবাই একমত।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের সাবেক ভিপি ও বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নুর বলেন, আমরা এখনো জোট গঠনের কোনো চিন্তা করছি না। সাকি ভাইসহ (গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি) বিভিন্ন অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে থাকি। যেহেতু আমাদের রাজনৈতিক দর্শনটা এক। যেমন আমরা মওলানা আব্দুল হামিদ খান ভাসানীর মৃত্যু বাষির্কী পালন করেছি। এছাড়াও আমাদের সঙ্গে সমমনা চিন্তার লোকেরা যোগ দিয়েই থাকেন। যেমন মাহমুদুর রহমান মান্না ভাইয়ের অনুষ্ঠানে আমরা যাই। তবে এখন পর্যন্ত কোনো জোট করার চিন্তা করিনি।

মওলানা ভাসানী অনুসারী পরিষদের সভাপতি ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, দেশের এমন পরিস্থিতিতে কেউই বসতে চায় না। দেশের বিদ্যমান পরিস্থিতি থেকে বেরুতে হবে। সবাইকে বলেছি- অন্যদের ডাকো, সবাইকে একত্র করো। তিনি বলেন, দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলার জন্য চেষ্টা করছি।

উদ্যোগের সঙ্গে সম্পৃক্ত নেতারা জানান, ২৮ নভেম্বর শহীদ মিনারে গণসংহতি আন্দোলন, ছাত্র-যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদ, মওলানা ভাসানী অনুসারী পরিষদ ও রাষ্ট্র চিন্তা মিলে যৌথ সমাবেশ করেছে। আগামী ১২ ডিসেম্বর অন্যান্য আগ্রহী সংগঠনের সঙ্গে আলোচনা করার সম্ভাবনা আছে। সেদিন এ বিষয়টিকে আরও সামনে নেওয়ার বিষয়ে আরও আলাপ হবে।