জোরদার হচ্ছে ‘জাতীয় দুর্যোগ’ ঘোষণার দাবি

ঢাকা, রবিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

জোরদার হচ্ছে ‘জাতীয় দুর্যোগ’ ঘোষণার দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক ১০:৩২ অপরাহ্ণ, আগস্ট ০১, ২০১৯

print
জোরদার হচ্ছে ‘জাতীয় দুর্যোগ’ ঘোষণার দাবি

রাজধানীতে ডেঙ্গু পরিস্থিতি মারাত্মক রূপ নিয়েছে। প্রতিদিনই হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন অসংখ্য রোগী। সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালগুলো পরিস্থিতি সামাল দিতে পারছে না। প্রতিদিনই সারা দেশ থেকে অসংখ্য মানুষ ঢাকায় যাতায়াত করায় সারা দেশেই ছড়িয়ে পড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। ডেঙ্গু দেশের ৬৩ জেলায় ছড়িয়ে পড়ায় দেশজুড়ে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। এ পরিস্থিতিতে গত কয়েকদিন ধরে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জেএসডি, গণসংহতি আন্দোলনসহ বিভিন্ন দল ও প্রতিষ্ঠান এটাকে ‘জাতীয় দুর্যোগ’ ও ‘জাতীয় সংকট’ ঘোষণার দাবি জানিয়েছে। বিএনপিও এটাকে ‘বিপর্যয়কর’ পরিস্থিতি বলে উল্লেখ করেছে।

আজ (১ আগস্ট) জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) রাজধানীসহ সংলগ্ন এলাকাকে ‘দুর্গত’ এলাকা ঘোষণার দাবি জানিয়েছে। পাশাপাশি পরিস্থিতি মোকাবেলায় জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কাউন্সিল গঠনের দাবিও জানিয়েছে দলটি। অনেকে জাতীয় দুর্যোগ আইন প্রয়োগের দাবিও জানান। গতকাল জাসদ কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে দলের সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার বলেন, ‘ডেঙ্গু পরিস্থিতি একটি জাতীয় বিপদ ও দুর্যোগ হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে। তাই ডেঙ্গুকে আপদ এবং দুর্যোগ ঘোষণা করা, ঢাকাসহ সংলগ্ন অঞ্চলকে দুর্গত এলাকা ঘোষণার দাবি জানাচ্ছি। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রীকে সম্পৃক্ত করে জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কাউন্সিল গঠন করতে হবে।’

তিনি বলেন, খোদ রাজধানীতেই ডেঙ্গুর চিকিৎসাসেবার অপ্রতুলতা ও হিমশিম অবস্থা চলছে। এটা প্রতিরোধে এখনো কার্যকর কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। বরং এ ক্ষেত্রে গাফিলতি ও ব্যর্থতা এখনো কাটিয়ে ওঠেনি।

জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু বলেন, এ পরিস্থিতিতে আমরা কেবল দুটি সিটি করপোরেশন এবং স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ওপর ছেড়ে রাখতে পারি না। সেজন্য আমরা জাতীয় দুর্যোগ আইন সামনে এনে জাতীয় দুর্যোগ কাউন্সিল গঠন এবং একই সঙ্গে ঢাকাসহ আশপাশের অঞ্চলকে দুর্গত এলাকা ঘোষণার দাবি করছি। সরকারের কাছে আমাদের দাবি, জাতীয় দুর্যোগ আইন প্রয়োগ করা হোক।

এদিকে আজকে অবিলম্বে ডেঙ্গুকে মহামারী ঘোষণা করে ‘জাতীয় দুর্যোগ’ হিসেবে এটি নিয়ন্ত্রণে সরকারের সব সংস্থাকে কাজে লাগাতে জরুরি পদক্ষেপ নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে গণসংহতি আন্দোলন।

এর আগে গত বুধবার বিদ্যমান বিপর্যয়কে ‘জাতীয় সংকট’ ঘোষণা দিয়ে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানায় জেএসডি।

দলের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়, ‘ঢাকাসহ সারা দেশে ডেঙ্গু ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে। ডেঙ্গুর ভয়াবহতা ব্যাপক হারে বাড়লেও এডিস মশা নিধনে দৃশ্যমান কিছু পরিলক্ষিত হচ্ছে না। মশা মারার ওষুধ অকার্যকর। কার্যকর ওষুধ জরুরি ভিত্তিতে আনা হচ্ছে না। সরকার ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে পুরোপুরি ব্যর্থ। এটি জরুরি অবস্থা ঘোষণার পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। ’