৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকায় সিএনজি স্টেশনে গাড়ির চাপ

ঢাকা, সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১ | ৩ কার্তিক ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকায় সিএনজি স্টেশনে গাড়ির চাপ

নিজস্ব প্রতিবেদক
🕐 ১:০৫ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১

৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকায় সিএনজি স্টেশনে গাড়ির চাপ

গতকাল রোববার থেকে প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত চার ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ থাকছে। এ কারণে গতকাল সন্ধ্যা আগে ও রাতে সিএনজি স্টেশনে ছিল গাড়ির ভিড়। মহাখালী একটি গ্যাস স্টেশনে গতকাল দেখা যায় বিপুলসংখ্যক গাড়ি দাঁড়ানো। সেখানে একজন সিএনজিচালিত গাড়ির চালক বলেন, হঠাৎ এই সিদ্ধান্তে আমরা মহামুশকিলে পড়ছি। তাই তড়িঘড়ি করে গ্যাস ভরতে আসছি। পাঁচটায় এসেও অনেক পেছনে পড়ে গেছি, এখন বাজে প্রায় ছয়টা। সবগুলো গাড়িতে গ্যাস ৬টার মধ্যে ভরা সম্ভব হবে কিনা জানি না।

পল্টনের একটি গ্যাস স্টেশনে পাম্প কর্তৃপক্ষের মধ্যে ব্যাপক বাকবিতণ্ডা দেখা যায়। ছয়টা বাজার সঙ্গে সঙ্গে গ্যাস দেওয়া বন্ধ হওয়ায় উত্তেজিত হয়ে ওঠেন অর্ধশতাধিক গাড়ির চালক।

গত বুধবার (১৫ সেপ্টেম্বর) রাতে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা (উপ-প্রধান তথ্য অফিসার) মীর মোহাম্মদ আসলাম উদ্দিন এ তথ্য জানিয়েছিলেন।

প্রথমে প্রতিদিন বিকেল ৫টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত মোট ছয় ঘণ্টা সিএনজি স্টেশন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল সরকার। কিন্তু সিএনজি স্টেশন মালিকদের আপত্তির মুখে পরে সেই সিদ্ধান্তে পরিবর্তন আনা হয়।

গ্যাসভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলোর গ্যাসের চাহিদা ও সরবরাহের স্বল্প, মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা প্রণয়ন বিষয়ে গত ১৯ জুলাই প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ-বিষয়ক উপদেষ্টার উপস্থিতিতে ও বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ভার্চুয়াল সভায় ‘বিদ্যুতের দৈনিক পিক-আওয়ারে সিএনজি স্টেশন বন্ধ রাখতে হবে’ বলে সিদ্ধান্ত হয়।

এর পরিপ্রেক্ষিতে গত ১৩ সেপ্টেম্বর বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয় জানায়, প্রতিদিন বিকেল ৫টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত সিএনজি স্টেশন বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এ সিদ্ধান্ত কার্যকর থাকবে। কিন্তু ওই দিন বিকেলেই সিদ্ধান্ত কার্যকরের তারিখ থেকে সরে আসে বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়।

সেদিন বিকেলে মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ১৪ সেপ্টেম্বর বেলা ১১টায় পেট্রোবাংলা সংশ্লিষ্ট অংশীজনদের নিয়ে এ সিদ্ধান্ত কার্যকরের বিষয়ে একটি সভা করবে। পরে সেই সভায় সিএনজি স্টেশন মালিকরা প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত তিন ঘণ্টা সিএনজি স্টেশন বন্ধ রাখার প্রস্তাব দেন। কোনো সিদ্ধান্ত ছাড়াই শেষ হয় সেই সভাটি। শেষে সভায় দেওয়া মালিকদের মতামতের ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ রাখার কথা জানায় জ্বালানি মন্ত্রণালয়।

 
Electronic Paper