‘পলাতকদের দ্রুত দেশে ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করা হবে’

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ | ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

‘পলাতকদের দ্রুত দেশে ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করা হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক ৭:১৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১০, ২০১৮

print
‘পলাতকদের দ্রুত দেশে ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করা হবে’

একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলার নৃশংসতায় অংশ নিয়েছিলেন ও আশ্রয়-অর্থ যোগান দিয়েছেন তাদের দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী বিচার হয়েছে জানিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, নৃশংস ওই মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক আসামিদের শিগগিরই দেশে ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করা হবে।

বুধবার ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ে সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদণ্ড, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবন এবং বাকি ১১ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছে। এই মামলার রায়ের প্রতিক্রিয়ায় এসব কথা বলেন তিনি।

মামলার রায় যথার্থ হয়েছে উল্লেখ করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ২১ শে আগস্ট গ্রেনেড হামলার রায়ের মধ্য দিয়ে জাতি পাপের কালিমালেপন থেকে মুক্ত হয়েছে। এই রায়ে আমরা সন্তুষ্ট, বিচার বিভাগ যা মনে করেছেন সেভাবেই রায় দিয়েছেন, এ নিয়ে সরকারের কিছু বলার নেই, রায়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি তারেক জিয়াসহ যারা বিদেশে পলাতক রয়েছেন তাদের দ্রুত ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করা হবে।

'জনগণ তারেক রহমানের ফাঁসি প্রত্যাশা করেছিল’ সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, আমাদের গোয়েন্দারা তদন্ত করে প্রমাণ পেয়েছে- গ্রেনেড হামলার পরিকল্পনা হয়েছে হাওয়া ভবনে। আর তারেক রহমানের নির্দেশে হাওয়া ভবন চলতো। আদালতের রায়ের ব্যাপারে আমার কিছু বলার নেই। রায়ের পর আপিল করার সুযোগ আছে।
 
তিনি বলেন, যারা দেশবিরোধী কাজ করবে, অপরাধ করবে, জনগণ তাদের ক্ষমা করবে না। তাদের অবশ্যই শাস্তি পেতে হবে।

ঢাকার বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট এক সমাবেশে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার উদ্দেশ্যে চালানো নৃশংস গ্রেনেড হামলা চালানো হয়। ভয়াবহ ওই হামলায় অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে যান বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। হামলায় আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক, সাবেক রাষ্ট্রপতি (প্রয়াত) জিল্লুর রহমানের স্ত্রী আইভি রহমানসহ ২৪ জন নিহত হন। আহত হন দলের তিন শতাধিক নেতা-কর্মী।