হামলাকারীদের কবলমুক্ত নীলসাগর অফিস

ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ আগস্ট ২০২০ | ৩০ শ্রাবণ ১৪২৭

এমপি ও এসপির হস্তক্ষেপ

হামলাকারীদের কবলমুক্ত নীলসাগর অফিস

নীলফামারী প্রতিনিধি ১০:৩২ অপরাহ্ণ, জুলাই ১২, ২০২০

print
হামলাকারীদের কবলমুক্ত নীলসাগর অফিস

স্থানীয় সংসদ সদস্য ও প্রশাসনের হস্তক্ষেপে অবশেষে হামলাকারীদের কবলমুক্ত হয়েছে নীলফামারী শহরের মাস্টারপাড়ায় অবস্থিত নীলসাগর গ্রুপের প্রতিষ্ঠান ইয়োথ এগ্রো ফার্ম। নীলফামারী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মমিনুল ইসলাম বলেন, ‘হামলার ঘটনায় অভিযোগ পাওয়ার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এখন সেখানে নীলসাগর গ্রুপের কর্মকর্তারা নিরাপদে কাজ করছেন।’

এদিকে, হামলাকারীদের কবল থেকে অফিস মুক্ত করতে সহযোগিতা করায় নীলফামারী-২ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) আসাদুজ্জামান নূর ও পুলিশ সুপার মো. মোখলেছুর রহমানের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন নীলসাগর গ্রুপের চেয়ারম্যান প্রকৌশলী আহসান হাবীব লেলিন।

এর আগে, গত শনিবার সকালে ইয়োথ এগ্রো ফার্মের অফিসে লাঠিসোটা ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে দুদকের মামলার আসামি মারুফ জামান কোয়েলের নেতৃত্বে সন্ত্রাসী দল হামলা চালায়। হামলার সময় অফিসের বাইরে অস্ত্রধারীরা পাহারায় থাকে। হামলাকারীরা অফিসে থাকা কর্মচারীদের মারধর করে বের করে দেয়। লুট করা হয় কর্মচারীদের বেতন-বোনাসের জন্য রাখা তিন কোটি টাকা। ভাঙচুর করা হয় আসবাবপত্র, বিলবোর্ড ও অন্য জিনিসপত্র।

নীলসাগর কর্তৃপক্ষ জানায়, সীমাহীন দুর্নীতি ও অনিয়মের অভিযোগে সম্প্রতি মারুফ জামান কোয়েলসহ বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে প্রতিষ্ঠান থেকে বরখাস্ত করা হয়। এর জের ধরেই এ হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করা হয়।

হামলার ঘটনায় নীলসাগর গ্রুপের মাস্টারপাড়া লোকাল অফিসের সহকারী ব্যবস্থাপক নূরে আলম সিদ্দিক বাদী হয়ে সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলায় আসামি করা হয়েছে মারুফ জামান কোয়েল, মমিনুর রহমান রঞ্জু, আব্দুর রশিদ মুক্তি, জিয়াউর রহমান জিয়া, মো. আজাদ ও মো. শিমুলকে। এছাড়াও অজ্ঞাত আরও ৬০-৭০ জনকে আসামি করা হয়েছে।