মাকে বাঁচাতে প্রয়োজন ৬ লাখ টাকা

ঢাকা, শুক্রবার, ৩ এপ্রিল ২০২০ | ২০ চৈত্র ১৪২৬

মাকে বাঁচাতে প্রয়োজন ৬ লাখ টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক ২:৪৯ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২০

print
মাকে বাঁচাতে প্রয়োজন ৬ লাখ টাকা

বাবা-মা হলেন প্রতিটি সন্তানের বটবৃক্ষ। এরমধ্যে মা হলেন সন্তানের জন্য সর্বশ্রেষ্ঠ নিরাপদ আশ্রয়স্থল। অথচ চিকিৎসার আনুমানিক খরচ মাত্র ৬ লাখ টাকার অভাবে সন্তানের সামনেই চিরতরে হারিয়ে যেতে বসেছেন ফারহান তসলিম রিফাতের মা সুলতানা তসলিম।

বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া ছেলেটির বয়স মাত্র ২১ বছর। গুরুতর অসুস্থ মা সুলতানা তসলিমের বয়স মাত্র ৪৩ বছর। বাবা ইঞ্জিনিয়ার মো. তসলিম উদ্দিন ২০০৫ সালে মারা গিয়েছেন।

এতোদিন রিফাতের বাবার জমানো টাকাতেই মা-ছেলের জীবন পার হচ্ছিলো। গত বছরের মাঝামাঝির দিকে মা সুলতানা গুরুতর অসুস্থ বোধ করায় রিফাত দার্জেলিং থেকে পড়াশোনা ফেলে ঢাকায় চলে আসেন। রাজধানীর মোহাম্মদপুরে একটি ছোট্ট বাসায় ভাড়া থাকেন তারা। তাদের গ্রামের বাড়ি- বগুড়া জেলার শিবগঞ্জ থানার পিরব ইউনিয়নের শিয়ালী গ্রামে।

ছেলে ফারহান তসলিম রিফাত কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, হাসপাতালের পরীক্ষায় মায়ের দুটি কিডনি ড্যামেজ হয়ে যাওয়ার বিষয়টি স্পষ্ট হয়েছে। এছাড়াও তার ডায়াবেটিস এবং উচ্চরক্তচাপের সমস্যা রয়েছে। অসুস্থ মা আমার সামনেই কাতরাচ্ছেন, আমি টাকার অভাবে তাকে হাসপাতালে ভর্তি পর্যন্ত করতে পারছি না।

এদিকে মায়ের চিকিৎসার জন্য আনুমানিক ব্যায়ের বিষয়ে স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ মিটফোর্ড হাসপাতালের চিকিৎসক অধ্যাপক ম. মহিবুর রহমান জানিয়েছেন, জরুরী ভিত্তিতে অন্তত ৬ লাখ টাকা লাগবে। এমন পরিস্থিতিতে নিজেকে খুব অসহায় মনে হচ্ছে। বাবা মারা গেছেনে অনেক আগেই, এখন এই পৃথিবীতে মা ছাড়া আমার আপন বলতে আর কেউ নেই।

আমি একটি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের বিবিএ প্রথম সেমিস্টারে পড়াশোনা করছি। এমন পরিস্থিতিতে আমার পড়াশোনাও প্রায় বন্ধ হয়ে গেছে। বাবার জমানো টাকা সব খরচ হয়ে গেছে। আমাদের আর কোন জমানো টাকা বা সম্পত্তি নেই, যা মায়ের চিকিৎসার জন্য খরচ করবো। এই মূহুর্তে সাহায্যের জন্য হাতপাতা ছাড়া আর কোন উপায় নেই।

মায়ের চিকিৎসার জন্য ফারহানের কাছে সাহায্য পাঠানোর বিকাশ নম্বর- ০১৯২০-৮৮৯৪৯৪। এছাড়াও ডাচ বাংলা ব্যাংক একাউন্ট- (ব্রাঞ্চ-গুলশান সার্কেল, একাউন্টের নাম- Md. Farhan Taslim Rifat, একাউন্ট নম্বর- ২৪৬.১০৩.৭৮১২০।