চার দিনে মৃত্যু ৯

ঢাকা, শনিবার, ৭ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

ঢাকায় কমলেও ডেঙ্গু বেড়েছে বাইরে

চার দিনে মৃত্যু ৯

নিজস্ব প্রতিবেদক ১০:২৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৪, ২০১৯

print
চার দিনে মৃত্যু ৯

ঈদের আগের দিন পর্যন্ত কমলেও পরদিনই আবার বেড়েছে ডেঙ্গু রোগী। স্বাস্থ্য অধিদফতরের কন্ট্রোল রুমের তথ্যানুযায়ী, মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে আজ (১৪ আগস্ট) সকাল ৮টা পর্যন্ত দেশের হাসপাতালগুলোতে ১ হাজার ৮৮০ জন ডেঙ্গু নিয়ে ভর্তি হয়েছেন, যা আগের ২৪ ঘণ্টায় ছিল ১ হাজার ২০০ জন।

এদিকে গত চার দিনে সারা দেশে নয় ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়। এর মধ্যে ঢাকায় দুই শিশুসহ তিনজন, রাজশাহী, লালমনিরহাট, পাবনা, খুলনা, মাদারীপুর ও ফরিদপুরে একজন করে মোট নয়জন মারা যান।

ঢাকার তিন হাসপাতালে তিনজনের মৃত্যু : ঢাকার শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গত মঙ্গলবার ভোরে সামিয়া নামের ৫ বছর বয়সী এক শিশুর মৃত্যু হয়। দুদিন আগে আগারগাঁও তালতলা থেকে ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয় সামিয়া।

একই দিন সকাল ১০টার দিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান বাপেক্সের প্রকৌশলী মাহবুল্লাহ হক (৩৫)। তার বাড়ি রাজবাড়ীর পাংশায়। ঢাকার শিশু হাসপাতালে গত রোববার রাতে দুই বছর ৬ মাস বয়সী সামিয়ার মৃত্যু হয়। সে লক্ষ্মীপুরের কালী বাজার এলাকার রুবেলের মেয়ে। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গত সোমবার সকালে আবদুল মালেক (১৯) নামে এক তরুণের মৃত্যু হয়। মালেক চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার বহরম হাউসনগর মহল্লার গোলাম নবীর ছেলে। তিনি ঢাকায় রাজমিস্ত্রির কাজ করতেন।

লালমনিরহাটে ব্যবসায়ীর মৃত্যু
লালমনিরহাটে এক ব্যবসায়ী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। জেলার সিভিল সার্জন কাসেম আলী জানান, রোববার রাতে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মনিরুল ইসলাম (৩৫) নামে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয়। মনিরুলের বাড়ি লালমনিরহাট সদর উপজেলার খুনিয়াগাছ ইউনিয়নের কালমাটি বাগডোরা গ্রামে।

পাবনায় ছাত্রের মৃত্যু
পাবনা জেনারেল হাসপাতালে গত মঙ্গলবার রাতে মুছাব্বির হোসেন মাহফুজ (১৮) নামে এক ছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। মাহফুজ সদর উপজেলার চক রামানন্দপুর গ্রামের গোলাম মোস্তফার ছেলে। তিনি এবার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।

খুলনায় রমনা পার্কের পরিচ্ছন্নতাকর্মীর মৃত্যু
রমনা পার্কের পরিচ্ছন্নতা কর্মী মোহাম্মদ রাসেল খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান গত মঙ্গলবার। তার বাড়ি গোপালগঞ্জ জেলার কোটালীপাড়া উপজেলার নারিকেলবাড়ী গ্রামে।

মাদারীপুরে বৃদ্ধের মৃত্যু
মাদারীপুরের শিবচরে গতকাল বুধবার ভোর রাতে হাজী আবদুল মজিদ (৭৫) নামে আরও এক রোগী মারা গেছেন।

ফরিদপুরে শিশুর মৃত্যু
ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তানজিদ মোল্লা (৯) নামে এক শিশু গত মঙ্গলবার মারা গেছে। তানজিদ মধুখালী উপজেলার জাহিদ মোল্লার ছেলে।

সব মিলিয়ে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪৬ হাজার ৩৫১ জন; যাদের মধ্যে ৭ হাজার ৮৬৯ জন এখনো দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।