ক্ষত বিক্ষতের গান

ঢাকা, শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯ | ৩ কার্তিক ১৪২৬

ক্ষত বিক্ষতের গান

দ্বীপ সরকার ১২:২৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৯

print
ক্ষত বিক্ষতের গান

পাথরের ধ্বনি বলে কোনো ধ্বনি নেই,
সব কিছু মানুষের সাথে মানুষের ধ্বনি
ধূসর ডিগবাজির নাম-

পাথরের ঘর্ষণে- রসুন পিঁয়াজের কি যে দহন!
লৌকিকতা ছাড়িয়ে বহুদূর,
বহু নিবিড় ও প্রকাশ্যে বিস্তারিত সুর
সমর্পিত হলে কান্নার রোম-
পাঁজরের সাথে ছুপ ছুপ রক্তগুলো কথা বলে ইদানিং

ডাকসাইটে রাত- ঘুঙুর সরানো ভুল,
জোসনার মতো শরৎ ভাঙা আকাশের ডানা
আচমকায় ঘুম ভেঙে দেয় আমার।
বালিশের চেকপোস্টে লেগে আছে দাউ দাউ-
সেই যে দুঃখকালের পড়ন্ত জোসনা রাত,
পাথরের ধ্বনি কানে বাজে আমার-
সিলপাটার ঘর্ষণে যে সুর তুলেছিলো নববঁধু-নিখুঁত করে

ইচ্ছায় অথবা অনিচ্ছায় পাহাড়ের ঘুমে-
জ্বলে ওঠা হরিণীর শিং
পাগলের মতো তাড়িয়ে বেড়ায়-
কে বা কারা দৌড়োয়;
ছাতিম বৃক্ষ পর্যন্ত তার মোহন পায়ের আওয়াজ-
সে এক ক্ষত বিক্ষত হওয়ার গান!