ঢাকা, শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ২০১৮ | ১ ভাদ্র ১৪২৫
নব্য জেএমবির ‘নারী শাখার প্রধান’ জামিনে মুক্ত
খেলা কাগজ প্রতিবেদক
Published : 2018-06-14 12:08:00
নব্য জেএমবির ‘নারী শাখার প্রধান’ জামিনে মুক্ত

গত বছর ১৫ অগাস্ট পান্থপথের হোটেল ওলিওতে পুলিশের জঙ্গিবিরোধী অভিযানের মধ্যে বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে আত্মঘাতী হয় এক জঙ্গি, ওই ঘটনায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগে নাবিলাকে গ্রেপ্তার করেছিল পুলিশ

গ্রেপ্তারের দুই মাসের মাথায় জামিনে মুক্তি পেয়েছেন নব্য জেএমবির ‘সদস্য’ হুমায়ারা ওরফে নাবিলা, যিনি জঙ্গি গোষ্ঠীটির নারী শাখার প্রধান বলে পুলিশের ভাষ্য।
ঢাকার মহানগর দায়রা জজ আদালত থেকে মঙ্গলবার জামিন পেয়ে বুধবার কাশিমপুর কারাগার থেকে তিনি মুক্তি পেয়েছেন বলে সংশ্লিষ্ট আদালতে রাষ্ট্রপক্ষের অন্যতম অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর তাপস পাল জানিয়েছেন।
সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সরকারি এই কৌঁসুলি জানান, নাবিলার পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট মানিক ঘোষ। তার সঙ্গে শুনানিতে অংশ নিয়েছিলেন ঢাকা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মামুন।
সন্দেহভাজন এই জঙ্গির জামিন আবেদনের বিরোধিতা করে বক্তব্য রাখেন পুলিশের প্রসিকিউশন বিভাগের সহকারী কমিশনার মো. ফরিদ।
উভয়পক্ষের শুনানি নিয়ে ভারপ্রাপ্ত মহানগর দায়রা জজ নুরুল আমিন বিপ্লব তার জামিন মঞ্জুর করেন বলে অতিরিক্ত পিপি তাপস জানান।
গত বছরের ১৫ অগাস্ট ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বোমা হামলা চালিয়ে মন্ত্রী-এমপিসহ শতাধিক মানুষকে হত্যার পরিকল্পনা নস্যাৎ করার কথা জানিয়েছিল পুলিশ। নাবিলা ও তার স্বামী তানভীর ইয়াসিন করিম ওই ঘটনায় অর্থের জোগান দিয়েছিলেন বলে অভিযোগ পুলিশের।
জঙ্গিবাদে জড়িত থাকার অভিযোগে গত বছরের নভেম্বরে করিমকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে গত ৫ এপ্রিল সিদ্ধেশ্বরী এলাকা থেকে নাবিলাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।
পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিটের উপ কমিশনার মহিবুল ইসলাম খান সে সময় বলেছিলেন, হোমায়ারা ওরফে নাবিলা নব্য জেএমবির নারী শাখার প্রধান। তাকে তার সংগঠনে ‘ব্যাট ওমেন’ বলে ডাকা হয়।
সিটিটিসি কর্মকর্তারা বলেন, গত বছরে অগাস্টে পান্থপথের হোটেল ওলিওতে বিস্ফোরণে এক জঙ্গির মৃত্যুর তদন্তে গিয়ে প্রকাশনা সংস্থার মালিক করিমের সম্পৃক্ততা পাওয়ার পর তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাকে জিজ্ঞাসাবাদে স্ত্রী হোমায়ারও জঙ্গিবাদে জড়িত থাকার প্রমাণ মেলে। তারা আর্থিকভাবে বেশ স্বচ্ছল।
করিম ইন্টারন্যাশনাল ও দারুস সালাম পাবলিকেশন্স নামের প্রকাশনা সংস্থার মালিক করিমদের বাড়ি গুলশানে। মনিপুরিপাড়ায় তাদের বইয়ের দোকান রয়েছে। করিম ইন্টারন্যাশনাল বই প্রকাশের পাশাপাশি বিদেশি বিভিন্ন লেখকের বই বিদেশ থেকে এনে সরবরাহ করে থাকে।
মামলার নথি সূত্রে জানা যায়, গ্রেপ্তারের পর কয়েক দফা রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছিল হুমায়ারা ওরফে নাবিলাকে। পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে তিনি ‘সব কিছু স্বীকার করলেও’ আদালতে গিয়ে বিচারকের সামনে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে রাজি হননি।
তবে সাক্ষী হিসেবে তার এক খালাত ভাই আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।




সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক ও প্রকাশক
মো. আহসান হাবীব
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক
ড. কাজল রশীদ শাহীন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত খোলাকাগজ ২০১৬
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: বসতি হরাইজন ১৮/বি, হাউজ-২১, রোড-১৭, বনানী বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১২১৩।
ফোন : +৮৮-০২-৯৮২২০২১, ৯৮২২০২৯, ৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৬, ৯৮২২০৩৭, ফ্যাক্স: ৯৮২১১৯৩, ই-মেইল : editorkholakagoj@gmail.com    kholakagojnews@gmail.com
Developed & Maintenance by Khola Kagoj IT Team. Email : rafiur@poriborton.com
var _Hasync= _Hasync|| []; _Hasync.push(['Histats.start', '1,3452539,4,6,200,40,00010101']); _Hasync.push(['Histats.fasi', '1']); _Hasync.push(['Histats.track_hits', '']); (function() { var hs = document.createElement('script'); hs.type = 'text/javascript'; hs.async = true; hs.src = ('//s10.histats.com/js15_as.js'); (document.getElementsByTagName('head')[0] || document.getElementsByTagName('body')[0]).appendChild(hs); })();