ট্রেনের ছাদে ভ্রমণে প্রথম দিনে ছয় জনের দণ্ড

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ৪ আশ্বিন ১৪২৬

ট্রেনের ছাদে ভ্রমণে প্রথম দিনে ছয় জনের দণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক ১১:২১ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ০২, ২০১৯

print
ট্রেনের ছাদে ভ্রমণে প্রথম দিনে ছয় জনের দণ্ড

ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ ঠেকাতে অভিযান শুরু করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। গতকাল রোববার থেকে ট্রেনের ছাদেও উঠতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। একই দিন রাজধানীর কমলাপুর স্টেশনে প্রথম দিনের অভিযান শুরু করে টাস্কফোর্স। অভিযানকালে বেশ কয়েকজনকে ছাদ থেকে নামানোসহ চট্টগ্রামে ৬ জনকে দণ্ড দিয়েছেন ম্যাজিস্ট্রেট।

রেলওয়ে সূত্রে জানা যায়, এখন থেকে ট্রেনের ছাদে ভ্রমণে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করা হয়েছে। রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর প্রধান পরিদর্শক মো. শহীদ উল্লাহ বলেন, ‘ছাদে বা বাম্পারে অবৈধ ভ্রমণের ক্ষেত্রে আমরা আগে থেকেই দণ্ডনীয় অপরাধ বলে আসছি। এবার কর্তৃপক্ষের নির্দেশে কঠোরভাবে বিষয়টি দমন করা হচ্ছে। ঢাকা থেকে আখাউড়া এবং ময়মনসিংহগামী ট্রেনের ছাদে ভ্রমণের প্রবণতা বেশি দেখা যায়। এ জন্য সেসব ট্রেনেও কড়া নজরদারি করা হচ্ছে।’

কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন ব্যবস্থাপক আমিনুল হক জুয়েল বলেন, ‘সকাল থেকে চার সদস্যের একটি টিম প্রতিটি ট্রেন ছাড়ার সময় নজরদারি করছে। কিছু যাত্রী নিজেদের ইচ্ছায় অনেকটা শখ থেকে ছাদে উঠে পড়েন। কর্তৃপক্ষ এবার এ বিষয়ে কঠোর হতে নির্দেশনা দেওয়ায় আর কাউকে ছাদে নেওয়া হচ্ছে না। রেলওয়ে আইন ১৮৯০ অনুযায়ী কোনো মানুষের দ্বারা যদি রেলের ক্ষতি হয় তাহলে তার এক বছরের কারাদণ্ড কিংবা অর্থদণ্ডের ব্যবস্থা রয়েছে।’

রেলের মহাব্যবস্থাপক (পশ্চিমাঞ্চল) মো. হারুনুর রশীদ বলেন, ‘রেলের পশ্চিমাঞ্চলে ১৫টি টাস্কফোর্স টিম ছাদে ভ্রমণবিরোধী অভিযান চালাচ্ছে। ছাদে বেশি ওঠার প্রবণতা দেখা যায় পশ্চিমাঞ্চলের এমন ১২টি স্টেশনে চলছে কড়া নজরদারি। একইভাবে রেলের পূর্বাঞ্চলেও বিশেষ অভিযান চালাবে টাস্কফোর্স।’

রেলওয়ের পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক নাসির উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘এখন থেকে কেউই কোনো ট্রেনের ছাদে উঠতে পারবেন না। ট্রেনের ছাদে ভ্রমণে এবার জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করা হয়েছে।’

ছাদে ভ্রমণের দায়ে ৬ জনকে জরিমানা

এদিকে গতকাল নিষেধাজ্ঞা কার্যকরের প্রথম দিন সকালেই ট্রেনের ছাদে ভ্রমণের দায়ে চট্টগ্রামে ৬ যাত্রীকে জরিমানা করা হয়েছে। চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশনে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাহফুজা জেরিনের নেতৃত্বে পরিচালিত অভিযানে তাদের এই জরিমানা করা হয়। গন্তব্যের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার আগে সুবর্ণ, চট্টলা এক্সপ্রেস, বিজয়, উদয়ন এক্সপ্রেস ও মেইল ট্রেনে অভিযান চালানো হয়।

অভিযানে ট্রেনের ৬ যাত্রীকে রেলওয়ে আইনের ১২৯ ধারায় এবং পাবলিক প্লেসে ধূমপান করায় ধূমপান ও তামাকজাত দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ৪ ধারায় ৪ জনকে জরিমানা করা হয়। সব মিলিয়ে তাদের কাছ থেকে ২ হাজার ৫৫০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

ম্যাজিস্ট্রেট মাহফুজা জেরিন বলেন, ‘রোববার (গতকাল) থেকে ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ নিষিদ্ধ করা হয়। স্টেশনগুলোতে এই বিষয়ে নোটিশও টাঙানো হয়েছে। এরপরও স্টেশনে এসে দেখা যায়, ট্রেনের ছাদে কিছু যাত্রী উঠে বসে আছেন এবং পাবলিক প্লেসে ধূমপান করছেন। তাই তাদের আইনের আওতায় এনে জরিমানা করা হয়েছে।’