খুলনায় খুলে দেওয়া হলো দোকান মার্কেট শপিংমল

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৪ আগস্ট ২০২০ | ২০ শ্রাবণ ১৪২৭

খুলনায় খুলে দেওয়া হলো দোকান মার্কেট শপিংমল

জামাল হোসেন, খুলনা ১১:২৩ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১০, ২০২০

print
খুলনায় খুলে দেওয়া হলো দোকান মার্কেট শপিংমল

খুলনা জেলা ও মহানগরে শর্ত সাপেক্ষে বৃহস্পতিবার থেকে সব দোকান, মার্কেট ও শপিংমল খুলে দেওয়া হয়েছে। তবে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত খোলা রাখার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

স্বাস্থ্যবিধি মেনেই ব্যবসা পরিচালনার নির্দেশনা দিয়েছেন খুলনা জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এবং জেলা পর্যায়ে করোনাভাইরাস এর সংক্রমণ ও প্রতিরোধসহ সার্বিক ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ হেলাল হোসেন।

জেলা প্রশাসনের এক গণবিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ৩০ জুন জারিকৃত পত্রের আলোকে ঘোষিত রেড জোন (নগরীর ১৭ ও ২৪ নং ওয়ার্ড এবং রূপসার আইচগাতি ইউনিয়ন) এলাকা ব্যতীত জেলার সকল উপজেলা ও মহানগরীতে দোকানপাট, শপিংমল, যানবাহন, জনসাধারণের চলাচলের ওপর বিভিন্ন শর্ত আরোপ করা হয়।

এমতাবস্থায় বৃহস্পতিবার থেকে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত রেড জোন এলাকা ব্যতীত জেলা ও মহানগরীর অন্যান্য এলাকাসমূহের দোকানপাট ও শপিংমল সংশ্লিষ্ট মার্কেট কমিটি কর্তৃক নির্ধারিত বন্ধের দিন ব্যতীত অন্যান্য দিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত শর্ত সাপেক্ষে খোলা থাকবে। শর্তগুলোর মধ্যে রয়েছে- প্রতিটি শপিংমল ও শোরুম/দোকানে প্রবেশের ক্ষেত্রে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহারসহ স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় ঘোষিত স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করতে হবে। মাস্ক পরিধান ব্যতীত কোন ক্ষেত্রে দোকানে প্রবেশ করতে পারবে না। সকল বিক্রেতা/দোকান কর্মচারীকে মাস্ক ও হ্যান্ডগ্লাভস পরিধান ও অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করতে হবে।

হাটবাজার, দোকানপাটে ক্রয়-বিক্রয়কালে পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলতে হবে। শপিংমলে আগত যানবাহন সমূহকে অবশ্যই জীবাণুমুক্ত করার ব্যবস্থা রাখতে হবে। প্রতিটি শপিংমল/বিপণিবিতানের সামনে সতর্কবাণী “স্বাস্থ্যবিধি না মানলে, মৃত্যু ঝুঁকি আছে” সম্বলিত ব্যানার টানাতে হবে। যথাযথভাবে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে মার্কেটের সামনে ও ভেতরে মাইকিং করতে হবে। সকল প্রকার সভা-সমাবেশ, গণ জমায়েত ও অনুষ্ঠান আয়োজন বন্ধ থাকবে।

বৃহস্পতিবার থেকে জনস্বার্থে জারিকৃত এ আদেশ কার্যকর হবে। সকল জনসাধারণ ও ক্রেতা, বিক্রেতা, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে উপরোক্ত নির্দেশনা মেনে চলার জন্য বলা হল। অন্যথায় এ আদেশ ভঙ্গকারী সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।