ঘরে-বাইরে চাপে ইরান

ঢাকা, সোমবার, ১০ আগস্ট ২০২০ | ২৫ শ্রাবণ ১৪২৭

ঘরে-বাইরে চাপে ইরান

ডেস্ক রিপোর্ট ১০:২৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০২০

print
ঘরে-বাইরে চাপে ইরান

ভুল করে ইউক্রেনের বিমান বিধ্বস্তের ঘটনা স্বীকারের পর থেকেই সরকারবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল ইরান। দেশটির সর্বোচ্চ আধ্যাত্মিক নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনিরও পদত্যাগ দাবি করেছেন বিক্ষোভকারীরা। এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পও বিক্ষোভকারীদের ব্যাপারে ইরানকে সতর্ক করেছেন। দেশটির সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ডকে আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন বলছে যুক্তরাজ্য, কানাডা, ইউক্রেন, জার্মানি ও ফ্রান্স।

কানাডা বিমান বিধ্বস্তের ঘটনার যথার্থ বিচার দাবি করেছে। ফলে ঘরে-বাইরে চাপের মুখে পড়েছে ইরান। অন্যদিকে দেশটিতে চলমান উত্তেজনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন প্রবাসী বাংলাদেশিরা। এ অবস্থায় মধ্যপ্রাচ্যে বাংলাদেশের শ্রমবাজারে নেতিবাচক প্রভাব পড়ার আশংকা করছেন তারা। চলমান অবস্থায় মধ্যপ্রাচ্যে যুক্তরাষ্ট্র ও তাদের মিত্রদের উপস্থিতির কারণে যে অস্থিতিশীলতার সৃষ্টি হয়েছে, তা মোকাবেলায় ওই অঞ্চলের দেশগুলোকে নিজেদের মধ্যে সহযোগিতা আরও জোরদারের আহ্বান জানিয়েছেন খামেনি।

গত রোববার ইরানের এ সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা পাশাপাশি বিদেশিদের প্ররোচনাকে এড়িয়ে চলার কথা বলেছেন। এদিকে তেহরানে আজাদী স্কয়ারে বিক্ষোভকারীদের ওপর পুলিশের গুলি চালানোরও অভিযোগ উঠেছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া এক ভিডিওতে দেখা যায়, বিক্ষোভে গুলি চালানোর পর আহতদের সেখান থেকে বয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। রাস্তায় জমাট বাঁধা ছোপ ছোপ রক্ত। বিক্ষোভকারীরা ‘স্বৈরশাসকের পতন হোক’ স্লোগান দেন।

আন্তর্জাতিক সমালোচনার মধ্যে কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বলেছেন, বিমানে নিহত ৫৭ কানাডার নাগরিকের মৃত্যুর যথার্থ বিচার না হওয়া পর্যন্ত কানাডা ক্ষান্ত হবে না। নিহতদের স্মরণে কানাডায় ব্রিটিশ অ্যাম্বাসাডর রব ম্যাকএয়ার এক কর্মসূচিতে অংশ নিলে তাকেও গ্রেফতার করে ইরান। যদিও এক ঘণ্টা পর ছেড়ে দেওয়া হয় তাকে। ওই ঘটনাকে আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন দাবি করেছে যুক্তরাজ্য। এ ঘটনায় ফ্র্যাঞ্চ ও জার্মান পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয় যুক্তরাজ্যের প্রতি সহানুভূতি জানিয়েছে। ফলে ইরানের ওপর আন্তর্জাতিক আরও চাপ বাড়ার আশঙ্কা করছে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো।

এদিকে মধ্যপ্রাচ্যের এমন টানটান উত্তেজনায় বাংলাদেশের শ্রমবাজারে নেতিবাচক প্রভাব পড়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। ওমানে প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতিনিধিত্বকারী সংস্থা বাংলাদেশ সোশ্যাল ক্লাবের প্রেসিডেন্ট সিরাজুল হক জানান, ওমানে বাংলাদেশিদের বড় শ্রম বাজার রয়েছে। চলমান উত্তেজনায় প্রবাসীদের ব্যবসা-বাণিজ্যে প্রভাব পড়তে পারে।

ইরানের প্রভাবশালী জেনারেল কাসেম সোলাইমানি হত্যার পর থেকে যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যকার উত্তেজনার মধ্যে গত বুধবার ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান। তার কয়েক ঘণ্টা পর ইউক্রেনের বিমানটি ১৭৬ জন যাত্রী ও ক্রু নিয়ে বিধ্বস্ত হয়। যাদের সবাই নিহত হয়। প্রথমদিকে বিমান বিধ্বস্তের দায় অস্বীকার করলেও পরে দায় স্বীকার করে দুঃখ প্রকাশ করে ইরান। অনিচ্ছাকৃতভাবে ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি।