কোলেস্টেরলকে নিয়ন্ত্রণে রাখুন

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯ | ২৮ কার্তিক ১৪২৬

কোলেস্টেরলকে নিয়ন্ত্রণে রাখুন

স্বাস্থ্য কুশল ডেস্ক ৩:৪৮ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১২, ২০১৯

print
কোলেস্টেরলকে নিয়ন্ত্রণে রাখুন

মানবদেহের ক্ষতিকর একটি পদার্থ কোলেস্টেরল। এটা আমাদের জন্য খুবই বিপদ জনক। কোলেস্টেরালের ফলে আমার শরীরে বাঁধতে পারে নানা অসুখ। নানা অসুখের ভেতর উচ্চ রক্তচাপ, ওবেটিসি অন্যতম। এছাড়াও হতে পারে হার্টের নানান রোগ।

একজন সুস্থ সবল মানুষের রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা হওয়া উচিত প্রতি ডেসিলিটারে ১৬০ মিলিগ্রামেরও কম। জানেন, কী কী অভ্যাস আয়ত্তে আনলে সহজেই খারাপ কোলেস্টেরলকে ছেঁটে ফেলতে পারবেন শরীর থেকে?

ডায়েট থেকে বাদ দিন সম্পৃক্ত খাবার- অর্থাৎ চর্বি জাতীয় মাংস, পাম তেল, ডালডা, নারকেল, ডিমের কুসুম, মাখন, ঘি, কাজু বাদাম ইত্যাদি। কম তেল-মশলা হার্টের পক্ষে যেমন ভাল, তেমনই তা কোলেস্টেরলের মাত্রাকে নিয়ন্ত্রণে রাখে।

বরং খাবারের তালিকায় থাকতে হবে অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট ও ফাইভার সমৃদ্ধ খাবার। শাক-সবজি, তরিতরকারি, ফল, তার সঙ্গে অত্যাবশ্যক ফ্যাটি অ্যাসিড সমৃদ্ধ খাবারও।

শুধু ডায়েটই নয়, কোলেস্টেরল রুখতে মন দিতে হবে আরও খুঁটিনাটি বিষয়েও। দোকান থেকে কোনও খাবারের প্যাকেট কেনাকাটার আগে সতর্ক হোন। একটা ছোট্ট কাজ সারলেই কোলেস্টেরলের সঙ্গে লড়াই সহজ হবে। যা কিনছেন, তার পুষ্টিগুণ দেখে নিন। কতটা ফ্যাট শুধু তা দেখলেই হবে না, কতটা ট্রান্স ফ্যাট তা-ও দেখতে হবে। ট্রান্স ফ্যাট থেকেও শরীরে জমে কোলেস্টেরল।

ওজন অনুপাতে আপনার শরীরের কতটা পানি প্রয়োজন তা জেনে নিন কোনও পুষ্টিবিদের কাছ থেকে। তারপর নিয়ম মেনে সেই পানিটুকু প্রতিদিন খান। আজ কম খেয়ে কাল পুষিয়ে দেব, এই ধারণা একেবারে ভুল। শরীরের টক্সিন সরাতে ওস্তাদ পানি। যে কোনও হার্টের অসুখ ৫০-৬০ শতাংশ কমিয়ে দিতে পারে উপযুক্ত পরিমাণ পানি খাওয়ার প্রবণতা।

শরীরের ট্রাইগ্লিসারাইডকে নিয়ন্ত্রণ ও কোলেস্টেরলকে রুখতে চাইলে প্রতিদিন একমুঠো বাদামই হতে পারে আপনার সমস্যার অন্যতম সমাধান। আমন্ড, বালিতে ভাজা বাদাম মিশিয়ে ২৫ গ্রাম ওজনের মতো নিন। বিকেলের টিফিনে খান তা। চিপস বা ভাজাভুজি এড়ানো যাবে, পেটও ভরা থাকবে অনেকক্ষণ। বাদাম শরীরে ভালো কোলেস্টেরলকে বাড়ায়।