স্বপ্নের ফেরিওয়ালা...

ঢাকা, শনিবার, ২৫ জুন ২০২২ | ১১ আষাঢ় ১৪২৯

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

স্বপ্নের ফেরিওয়ালা...

কেএম হিমেল আহমেদ
🕐 ১:৪৩ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০১, ২০১৯

স্বপ্নের ফেরিওয়ালা...

সারাদিনের ক্লাস শেষে ক্লান্তি নিয়ে ঘরে ফেরার পথে বছরের পর বছর এই বাসই হয়ে থাকে নতুন স্বপ্নের অনুপ্রেরণা কিংবা সাক্ষী হয়েছে কোনো স্বপ্নভঙ্গের। সাধারণ মানুষের কাছে এই বাসগুলো হয়তো কেবলই শিক্ষার্থী বহনকারী কমলারঙের বাহন, কিন্তু বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (বেরোবির) শিক্ষার্থীরা জানেন এই বাস তাদের কতটা আপন, ঘরে ফেরার কত বড় নির্ভরযোগ্য মাধ্যম।

বেরোবির প্রশাসনিক ভবনের সামনে সারি সারি কৃষ্ণচূড়া গাছের নিচে যে কারোই চোখ মেলে তাকাতেই স্বাগত জানায় কমলারঙা সিঙ্গেল ডেকার বাসের সারিগুলো।

অনাবাসিক শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ক্যাম্পাসের প্রথম স্মৃতি বিশ্ববিদ্যালয়ের কমলা রঙের এই বাসগুলো। বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে এই বাস ঘিরে তৈরি হয় শত স্মৃতি, গড়ে ওঠে সম্পর্ক, তৈরি হয় নতুন বন্ধুত্ব। সকাল-সন্ধ্যা যখনই এই বাসগুলো ছুটে চলে শহরের অলিগলিতে, কত যে উৎসুক চাহনি চেয়ে থাকে তার পানে।

বিশ্ববিদ্যালয় জীবনের ৪-৫ বছর বাসগুলোর সঙ্গে গড়ে ওঠে নিবিড় মায়া। এক সময় সবাই ছুটে চলে পৃথিবী জয়ের জন্য, নানা কাজে নানা প্রান্তে এই বাসগুলো আহামরি কিছু নয়, এখানে নেই করোর জন্য নির্ধারিত সিট, নেই এসি, অথবা পুরো পথ হয়তো বসে কিংবা বাদুড় ঝুলা হয়ে যেতে হয়। তারপরেও নেই কমতি ভালবাসার আবেশ।

বাসগুলো স্বপ্নের ফেরিওয়ালা, স্বপ্নকে ফেরি করে বেড়াই শহরে অলিগলিতে সকাল-সন্ধ্যা। বর্তমানে বেরোবির প্রশাসন বাসের রুট ২টি থেকে বাড়িয়ে ৬টিতে নিয়ে এসেছে। এতে শিক্ষার্থীরা অনেক সুযোগ সুবিধা পাচ্ছেন।

 
Electronic Paper