মহাকাশে শুটিং, দুর্ঘটনা থেকে বেঁচে ফিরলেন কলাকুশলীরা

ঢাকা, সোমবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২১ | ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

মহাকাশে শুটিং, দুর্ঘটনা থেকে বেঁচে ফিরলেন কলাকুশলীরা

বিনোদন ডেস্ক
🕐 ৫:৩৯ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৭, ২০২১

মহাকাশে শুটিং, দুর্ঘটনা থেকে বেঁচে ফিরলেন কলাকুশলীরা

গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই উত্তেজনার পারদ চড়ছিল। মাসের শুরুতেই দু’জন নভোচারী ও দু’জন পেশাদার অভিনেতাকে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে পৌঁছে দেয় রাশিয়ার সয়ুজ এমএস-১৯ মহাকাশযান। পরিকল্পনা ছিল মহাশূন্যেই আস্ত সিনেমা শুট করার। সেইমতো ছবির কাজও প্রায় শেষ হয়ে এসেছিল। কিন্তু এরপরই বিপত্তি। মহাকাশযানটির ধাক্কায় কেঁপে উঠল মহাকাশ স্টেশন। তবে শেষ পর্যন্ত বড় বিপদ ঘটেনি। অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে গিয়েছেন মহাকাশযানের যাত্রীরা।

মহাকাশে বহু অসাধ্য সাধন করেছে মানুষ। কিন্তু সিনেমা তৈরির কথা কেউ ভাবেনি। রাশিয়াই গড়ছে নয়া নজির। প্রথমবার স্পেসএক্স মহাকাশযানে চেপে আমজনতার পাড়ি দেওয়ার রেকর্ড তৈরি হওয়ার পর এবার এই রেকর্ডের লক্ষ্যে মহাকাশে পাড়ি দিয়েছে মস্কো।

সব মিলিয়ে ১০ জন ছিলেন ওই মহাকাশ স্টেশনে। সেখানেই চলছিল শুটিং। কিন্তু গত শুক্রবার আচমকাই ঘটে যায় দুর্ঘটনা। সেই সময় পৃথিবীতে ফেরারই তোড়জোড় করছিলেন তখনই সয়ুজ এমএস-১৯-এর ধাক্কায় মহাকাশ স্টেশন প্রায় ৪৫ ডিগ্রি সরে যায়। রুশ অভিনেত্রী জুলিয়া পেরেসলিড, পরিচালক ও অভিনেতা ক্লিম শিপেঙ্কো ও মহাকাশচারী অভিনেতা ওলেগ নোভিতস্কি-সহ বাকিরা কার্যত কেঁপে ওঠেন।

তবে শেষ ভালো যার সব ভালো তার। এবার ঘরে ফেরার পালা। রোববারই পৃথিবীতে ফেরার কথা গোটা কাস্ট অ্যান্ড ক্রু দলের। শোনা গিয়েছে, এই ছবির একটি সিকুয়েলও হবে। সেখানে মঙ্গলগ্রহে অভিযান দেখানো হবে। তবে আপাতত যে নতুন ছবিটির জন্য অধীর প্রতীক্ষা শুরু হয়েছে তা বলাই বাহুল্য। পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ শেষ হয়ে কবে ছবিটি মুক্তি পাবে সেই আশাতেই দিনগোনা শুরু সারা বিশ্বের চলচ্চিত্র অনুরাগীদের। হাজার হোক, এই ছবি দেখতে পাওয়াটাও যে ইতিহাসের অংশীদার হওয়া।

 
Electronic Paper