ক্লাবগুলোতে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক দাবি

ঢাকা, সোমবার, ১০ আগস্ট ২০২০ | ২৫ শ্রাবণ ১৪২৭

ক্লাবগুলোতে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক দাবি

ক্রীড়া প্রতিবেদক ১১:০০ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ০৯, ২০২০

print
ক্লাবগুলোতে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক দাবি

করোনাভাইরাসে গত চারমাসে পাঁচটি সিরিজ বাতিল করেছে বাংলাদেশে ক্রিকেট বোর্ড। এমনকি ঘরোয়া লিগও স্থগিত করা হয়। যার কয়েক রাউন্ড খেলেও ফেলেছেন ক্রিকেটাররা। অনেক ক্রিকেটার ক্লাবগুলো থেকে অগ্রিম নিলেও অনেকেরটা পুরোপুরিই বাকি। এতে করে জাতীয় দলের বাইরে থাকা ক্রিকেটারদের বেহাল দশা।

এদিকে স্থগিত হওয়া প্রিমিয়ার সহসায় যে মাঠে গড়াচ্ছে না তা অনেকটাই পরিষ্কার। মঙ্গলবার রাতে অনলাইনে সভায় বসেছিল ত্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (কোয়াব)। সেখানেই বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে বলে ক্রিকেটারদের এই দায়িত্বশীল সূত্র জানিয়েছে। করোনা পরিস্থিতি বিচার বিশ্লেষণ করে সভায় ধরেই নেওয়া হয়েছে খুব সহসা, এক-দুই মাসের ভেতরে প্রিমিয়ার লিগ মাঠে গড়াচ্ছে না বা গড়ানোর সম্ভাবনা নেই।

সেক্ষেত্রে সম্ভাব্য করণীয় খুঁজতে গিয়ে কোয়াব কর্তারা বিসিবির মাধ্যমে ক্লাবগুলোর কাছে একটি আবেদন রেখেছেন। কোয়াব থেকে বিসিবির কাছে অনুরোধ জানানো হয়েছে যে, প্রিমিয়ারের ক্লাবগুলো যেন যত দ্রুত সম্ভব ক্রিকেটারদের অন্তত ৫০ শতাংশ পারিশ্রমিক পরিশোধ করে।

তাতে করে ক্রিকেটারদের আর্থিক ক্ষতি কিছুটা হলেও পোষাবে। কোয়াব সভাপতি নাইমুর রহমান দুর্জয়সহ সভাপতি খালেদ মাহমুদ সুজন, সদস্য সচিব দেবব্রত পাল, ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবাল, টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সৌম্য সরকার, লিটন দাস, আব্দুর রাজ্জাক, তুষার ইমরান, জহুরুল ইসলাম অমি, নাসির হোসেন, এনামুল হক জুনিয়র, শাহরিয়ার নাফীস, নাজমুল হোসেন শান্ত, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, আফিফ হোসেন ধ্রুব ও নাইম শেখরা এ অনলাইন সভায় অংশ নেন।

তাদের সঙ্গে বিসিবি সিইও নিজামউদ্দীন চৌধুরী সুজন ও বিসিবি পরিচালক এবং সিসিডিএম চেয়ারম্যান কাজী ইনামও সভায় আমন্ত্রিত ছিলেন।

তাদের মতামতও নেওয়া হয় এবং বিসিবির ও দুই শীর্ষকর্তা তাৎক্ষণিকভাবে জেনে যান যে, কোয়াব বোর্ডের মাধ্যমে প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলোর কাছে ক্রিকেটারদের অর্ধেক পারিশ্রমিক আবেদন করেছে।বিসিবিকে বলা হয়েছে ক্লাবের সঙ্গে আলোচনা করে ৫০ ভাগ পারিশ্রমিকের ব্যবস্থা করতে। করোনার কারণে স্থগিত এবারের ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলো দল সাজায় উন্মুক্ত দলবদলের মাধ্যমে। যদিও দলবদলের শর্ত অনুযায়ী, চুক্তির সময় ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিকের ৫০ ভাগ পরিশোধ করার কথা। কিন্তু আবাহনী, প্রাইম ব্যাংক, প্রাইম দোলেশ্বরের কয়েকজন ক্রিকেটার ছাড়া বেশির ভাগ ক্লাবের ক্রিকেটাররাই এই টাকাটা পাননি।