পাঠ্যবই ভালোভাবে পড়তে হবে

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ | ৬ আশ্বিন ১৪২৭

এইচএসসি কৃষিশিক্ষা

পাঠ্যবই ভালোভাবে পড়তে হবে

মিজানুর রহমান ১১:৪৩ পূর্বাহ্ণ, মে ২৪, ২০২০

print
পাঠ্যবই ভালোভাবে পড়তে হবে

পরীক্ষার ফলাফলে সাফল্য অর্জন করতে চায় প্রতিটি শিক্ষার্থীই। কিন্তু সে সাফল্য সবার পক্ষে অর্জন করা সম্ভব হয় না। এজন্য প্রয়োজন পাঠ
আয়ত্ত করার নানামুখী প্রচেষ্টা আর অনুশীলন কৌশলের। আশা করি, করোনাকালীন সময়ে তোমরা বাসায় নিয়মিত অনুশীলন করছো।পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে যেকোন সময় পরীক্ষার সময়সূচি ঘোষণা হবে

পরীক্ষার ফলাফলে সাফল্য অর্জন করতে চায় প্রতিটি শিক্ষার্থীই। কিন্তু সে সাফল্য সবার পক্ষে অর্জন করা সম্ভব হয় না। এজন্য প্রয়োজন পাঠ আয়ত্ত করার নানামুখী প্রচেষ্টা আর অনুশীলন কৌশলের। আশা করি, করোনাকালীন সময়ে তোমরা বাসায় নিয়মিত অনুশীলন করছো। 

পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে যেকোন সময় পরীক্ষার সময়সূচি ঘোষণা হবে। সামনে যে কয়েকটি দিন পাওয়া যাবে তা সঠিকভাবে কাজে লাগাবে।
এইচএসসি পরীক্ষায় কৃষিশিক্ষা যদিও চতুর্থ বিষয় (ঐচ্ছিক) তথাপি এটি মূল বিষয় থেকে কোনোভাবেই কম গুরুত্বপূর্ণ নয়। কারণ বর্তমানে প্রচলিত গ্রেডিং পদ্ধতিতে কোনো বিষয়ই গুরুত্বহীন নয়।

বরং চতুর্থ বিষয়ে ভালো করতে পারলে সামগ্রিক ফলাফল ভালো হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিকের সব পাবলিক পরীক্ষায় চতুর্থ বিষয়ের এ বাড়তি সুবিধাটা পাওয়া যাচ্ছে অর্থাৎ জিপিএ পয়েন্ট ৫ থেকে ২ পয়েন্ট বাদ দিয়ে অতিরিক্ত ৩ পয়েন্ট সর্বমোট পয়েন্টের
সঙ্গে যোগ হবে এবং সর্বমোট পয়েন্টকে মোট বিষয় দিয়ে ভাগ করার ক্ষেত্রে কৃষিশিক্ষা অর্থাৎ চতুর্থ বিষয়টি বিষয় হিসেবে গণ্য হবে না।
এ পরীক্ষায় অকৃতকার্য হলে ও ফলাফলে কোনো প্রভাব পড়বে না। তবে এ বিষয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ না করলে ফেল হিসেবে গণ্য হবে। কৃষিশিক্ষা তোমাদের জন্য ব্যবহারিক বিষয়।

ফলে পূর্ণমান ১০০-এর মধ্যে সৃজনশীলে ৫০ এবং নৈর্ব্যক্তিকে ২৫ নম্বর এবং ব্যবহারিকে ২৫ নম্বর। সৃজনশীল অংশে মোট ৮টি প্রশ্ন থাকবে এবং যে কোনো ৫টি প্রশ্নের উত্তর করতে হবে।

প্রতিটি প্রশ্নের মান ১০।
প্রতিটি প্রশ্নের মধ্যে অন্যান্য সব সৃজনশীল বিষয়ের মতো চারটি ভাগ থাকবে। ‘ক’ জ্ঞানমূলক মান-১, ‘খ’ অনুধাবনমূলক মান-২, ‘গ’ প্রয়োগমূলক মান-৩ এবং ‘ঘ’ উচ্চতর দক্ষতামূলক মান-৪।
বহুনির্বাচনী অংশে ২৫টি প্রশ্ন থাকবে, প্রতিটি প্রশ্নেরই উত্তর করতে হবে এবং প্রত্যেক প্রশ্নের মান হবে ১। সময় মোট ৩ ঘণ্টা, সৃজনশীল অংশের জন্য ২ ঘণ্টা ৩০ মিনিট এবং বহুনির্বাচনী অংশের জন্য ২৫ মিনিট। বহুনির্বাচনী অংশের জন্য আলাদা কোনো উত্তরপত্র সরবরাহ করা হবে।
কৃষিশিক্ষার বিষয় কোড-১৩৪। এ বিষয়টিতে মোট অধ্যায় রয়েছে সাতটি। ১ম অধ্যায় কৃষি প্রযুক্তি, ২য় অধ্যায় কৃষি উপকরণ,
৩য় অধ্যায় কৃষি ও জলবায়ু, ৪র্থ অধ্যায় কৃষিজ উৎপাদন, ৫ম অধ্যায় বনায়ন, ষষ্ঠ অধ্যায় কৃষি সমবায়, ৭ম অধ্যায় পারিবারিক খামার।
যেহেতু ৮টি সৃজনশীল প্রশ্ন থাকবে ফলে প্রতিটি অধ্যায় থেকেই প্রশ্ন পাওয়া যাবে তবে, ২য়, ৩য়, ৪র্থ অধ্যায় থেকে একাধিক প্রশ্ন পাওয়ার সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে।
আর নৈর্ব্যক্তিক উত্তরের জন্য তো সবগুলো অধ্যায় অবশ্যই ভালোভাবে পড়তে হবে। উদ্দীপকগুলো মনোযোগসহকারে পড়ে, ভালোভাবে বুঝে সঠিকভাবে খাতায় উপস্থাপন করতে পারলে অবশ্যই পরীক্ষায় ভালো করা সম্ভব।

মিজানুর রহমান
সহকারী অধ্যাপক
একেএম রহমত উল্লাহ কলেজ, ঢাকা।