নবম-দশম শিক্ষার্থীদের প্রস্তুতি

ঢাকা, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ১ আশ্বিন ১৪২৬

নবম-দশম শিক্ষার্থীদের প্রস্তুতি

রসায়ন ও ভূগোল

মোস্তাফিজুর রহমান ৬:১৮ অপরাহ্ণ, জুন ০৯, ২০১৯

print
নবম-দশম শিক্ষার্থীদের প্রস্তুতি

রসায়ন
প্রশ্ন : ‘ডোবেরাইনারের ত্রয়ী’ হিসেবে প্রথম ত্রয়ীর মৌলগুলোর যোজ্যতা ইলেকট্রনের সংখ্যা কত?
উত্তর : ১

প্রশ্ন : জার্মান বিজ্ঞানী ডোবেরাইনার কত সালে ত্রয়ী সূত্র আবিষ্কার করেন?
উত্তর : ১৮২৯ সালে

প্রশ্ন : অষ্টক সূত্রটি লিখ।
উত্তর : মৌলসমূহকে ক্রমবর্ধমান পারমাণবিক ভর অনুসারে সাজানো হলে কোনো মৌল হতে অষ্টম মৌলে আবার সেই মৌলের ভৌত ও রাসায়নিক ধর্মের পুনরাবৃত্তি ঘটে।

প্রশ্ন : সোনার পারমাণবিক সংখ্যা কত?
উত্তর : ৭৯

প্রশ্ন : পর্যায় সারণিতে আর্গন-পটাশিয়াম, আয়োডিন-টেলুরিয়ামের অবস্থানগত জটিলতা দূর হয় কোনটি আবিষ্কারের ফলে?
উত্তর : পারমাণবিক সংখ্যা

প্রশ্ন : ম্যাগনেসিয়াম পর্যায় সারণির কোন পর্যায়ে অবস্থিত?
উত্তর : তৃতীয় পর্যায়ে

প্রশ্ন : মৃৎক্ষার ধাতুগুলো কতটি ইলেকট্রন ত্যাগ করে আয়নিক যৌগ গঠন করে?
উত্তর : ২টি

প্রশ্ন : ত্রয়ী সূত্রটি লিখ।
উত্তর : রাসায়নিকভাবে সদৃশ তিনটি মৌলকে পারমাণবিক ভর অনুসারে সাজালে প্রথম ও তৃতীয় মৌলের ভরের গড় দ্বিতীয় মৌলের ভরের সমান হয়। এ মৌল তিনটিকে ত্রয়ী বলে। এটিই ত্রয়ী সূত্র নামে পরিচিত।

প্রশ্ন : আধুনিক পর্যায় সূত্রটি লিখ।
উত্তর : মৌলিক পদার্থ এবং তাদের থেকে সৃষ্ট যৌগিক পদার্থসমূহের ভৌত ও রাসায়নিক ধর্মাবলি তাদের পারমাণবিক সংখ্যার বৃদ্ধির সঙ্গে পর্যায়ক্রমে আবর্তিত হয়।

ভূগোল
মহাসাগর, সাগর, উপসাগর, হ্রদ, নদী প্রভৃতি জলাশয়ের একত্রিত নাম কী? -বারিমণ্ডল।
পৃথিবীর গভীরতম ও বৃহত্তম মহাসাগরের নাম কী? -প্রশান্ত মহাসাগর।. পৃথিবীতে মহাসাগরের সংখ্যা-। -পাঁচটি
চারদিকে স্থলভাগ দ্বারা বেষ্টিত পানি রাশিকে বলে-। -হ্রদ।
সমুদ্র স্রোত সৃষ্টিতে সবচেয়ে বেশি প্রভাব বিস্তার করে-। -বায়ু প্রবাহ
আটলান্টিক মহাসাগরীয় স্রোতকে ভাগ করা যায়-। -দুই ভাগে
সমুদ্র স্রোতগুলোকে তিন ভাগে ভাগ করা হয় কিসের ওপর ভিত্তি করে-।
-মহাসাগরীয় অবস্থান।
প্রশান্ত মহাসাগরের গড় গভীরতা কত?-৪,২৭০ মিটার
বারিম-ল ভূ-পৃষ্ঠের শতকরা কত ভাগ দখল করে রয়েছে? -৭১ ভাগ
ফকল্যান্ড স্রোতটি কি ধরনের স্রোত?
-শীতল স্রোত
কোন বায়ুর প্রভাবে শীতল কুমেরু স্রোতের সৃষ্টি হয়েছে? -অয়ন বায়ু
এন্টার্কটিকার উত্তর দিক দিয়ে প্রবাহিত স্রোতের নাম কী? -কুমেরু স্রোত
উপসাগরীয় স্রোতের বর্ণ কী?- গাড় নীল।
বারিম-লের আয়তন-।
- প্রায় ৩৬ কোটি ২৫ লাখ বর্গ কিমি.
সুনামি কী? -সামুদ্রিক ঢেউ
সমুদ্র স্রোতগুলোকে ভাগ করা হয়-।
-তিন ভাগে
দক্ষিণ মহাসাগরের গড় গভীরতা-।
-১৪৯ মিটার
আটলান্টিক মহাসাগরের উষ্ণ স্রোত ও শীতল স্রোতের মিলনস্থলকে কি বলা হয়?
-হিম প্রাচীর।
শৈবাল সাগর অবস্থিত-।
-উত্তর আটলান্টিক মহাসাগরে

সাবেক শিক্ষক, ক্যামব্রিয়ান কলেজ, ঢাকা।