ঢাকা, শনিবার, ৯ ডিসেম্বর ২০২৩ | ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪৩০

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

পর্যটন খাতে নতুন দিগন্তের সূচনা

পর্যটন স্পটসমূহে টাইম শেয়ারিং কার্ডসেবা চালু

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
🕐 ৬:৪০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২০, ২০২৩

পর্যটন স্পটসমূহে টাইম শেয়ারিং কার্ডসেবা চালু

বাংলাদেশে অপরাপর সম্ভাবনাময় পর্যটন শিল্পকে সহজভাবে বিকশিত ও সমৃদ্ধ করার লক্ষ্যে সুইট ড্রীম ম্যানেজমেন্ট লিমিটেডের ব্রান্ড ‘ডি মোর হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট’ এর যাত্রা শুরু হয়েছে। দেশের আকর্ষনীয় পর্যটন এলাকাসমূহ কক্সবাজার, বান্দরবান, সাজেক, শ্রীমঙ্গল, কুয়াকাটা, চট্টগ্রাম ও ঢাকায় ‘ডি’ মোর হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট চালু করা হয়েছে এবং আগামীতে রাঙ্গামাটি ও সেন্টমার্টিনেও শিগগিরই চালু করা হবে।

 

পর্যটকদের সারা বছরব্যপী নিশ্চিত আবাসন সেবা প্রদানের সুবিধার্থে ‘ডি মোর’ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টকর্তৃক টাইম শেয়ারিং কার্ড সেবা চালু করা হয়েছে। টাইম শেয়ারিং কার্ডধারী পর্যটকগণ নির্দিষ্ট সময় পর্যটন স্পট সমূহে ‘ডি মোর’ ব্রান্ডের হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টগুলোতে অবস্থান করে সেবা গ্রহণের সুবিধা পাবেন।

রাজধানীর একটি অভিজাত হোটেলে আজ (২০ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সুইট ড্রীম ম্যানেজমেন্ট লিমিটেডের চেয়ারম্যান লায়ন জি. কে. লালার সভাপতিত্ত্বে অনুষ্ঠিত দেশের প্রথম টাইম শেয়ারিং কার্ড সেবা LAUNCHING প্রোগ্রামে কার্ডধারী পর্যটকদের বিভিন্ন সুবিধাদি তুলে ধরেন। কোম্পানীর সম্মানিত ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও রিহ্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট আবদুল কৈয়ূম চৌধুরীসহ বক্তব্য রাখেন পরিচালক (মার্কেটিং) মহিউদ্দিন খান খোকন, কোম্পানীর জেনারেল ম্যানেজার অরবিন্দু চৌধুরী।

কোম্পানীর ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবদুল কৈয়ূম চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশ পর্যটন শিল্পের জন্য অপার সম্ভাবনাময়। পর্যটন শিল্প বিকাশে বাংলাদেশের আকর্ষনীয় পর্যটন এলাকা সমূহে দেশি বিদেশি পর্যটকদের নিরাপদ ভ্রমণ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে আমাদের ‘ডি মোর’ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টের যাত্রা। দেশের পর্যটক স্পট সমূহের মধ্যে কক্সবাজার, বান্দরবান, সাজেক, কুয়াকাটা, চট্টগ্রাম, শ্রীমঙ্গল ও ঢাকায় ‘ডি মোরে’র সফলভাবে যাত্রা শুরু হয়েছে। ইতিমধ্যে দেশি-বিদেশি পর্যটকগণ, দেশের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিগণ ‘ডি মোর’ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট সমূহে অবস্থান করে সন্তুষ্টি সাপেক্ষে সেবা গ্রহণ করেছে।

তিনি আরো বলেন, দেশের সকল নাগরিকদের কাছে আমাদের পর্যটন স্পট সমূহে ‘ডি মোর’ হোটেলের সেবা গ্রহণের সুযোগ করে দেওয়া হলে দেশের অর্থনৈতিক অবস্থার উপর পজিটিভ প্রভাব পড়বে বলে উল্লেখ করেন। এছাড়া আগামীতে নতুন পর্যটন স্পটে ‘ডি মোর’ হোটেল ও রিসোর্ট হোটেলের যাত্রা শুরু করবে। পর্যটন শিল্প বিকাশে অগ্রণী ভূমিকা পালন করবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মেজর জেনারেল সফিকুর রহমান, সাবেক ডিএমপি কমিশনার আসাদুজামান মিয়া, সাবেক অতিরিক্ত আইজিপি মো. ইকবাল বাহার। চট্টগ্রাম সিনিয়রস ক্লাবের প্রেসিডেন্ট ডা. সেলিম আক্তার চৌধুরীসহ সরকারি, বেসরকারি উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে কোম্পানির পক্ষ থেকে বাজারজাত করা ‘ডি মোর’ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টের দুধরনের কার্ড বাজারে অবমুক্ত করা হয়েছে। একটি GOLD CARD অপরটি PLATINUM CARD, GOLD এবং PLATINUM কার্ডধারীরা ১০ বছরব্যাপী পর্যটন এলাকার ‘ডি মোর’ ভুক্ত হোটেল সমূহে নানাবিধ সুযোগ সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

 
Electronic Paper