ভারসাম্যহীন পারভিন ফিরতে চায় পরিবারের কাছে

ঢাকা, বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১ | ৪ কার্তিক ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

ভারসাম্যহীন পারভিন ফিরতে চায় পরিবারের কাছে

খন্দকার জসিম উদ্দিন নকলা, (শেরপুর)
🕐 ৪:২৯ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৯, ২০২১

ভারসাম্যহীন পারভিন ফিরতে চায় পরিবারের কাছে

গত ৬ সেপ্টেম্বর পরিত্যাক্ত ভবন থেকে উদ্ধার শিরোনামে দৈনিক খোলা কাগজ পত্রিকায় প্রকাশিত ভারসাম্যহীন নারী নকলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। ছিন্নমূল নারী শুধু তার নাম পারভিন বলতে পারে।

পারভিনকে পরিত্যাক্ত ভবন থেকে উদ্ধার করার সময় তিনি জিবীত না মৃত বুঝা যায় নাই। শরীরে কোন কাপড় ছিল না। শরীর দূগগ্ধে কাছে যাওয়া দূরহ ব্যাপার ছিল। পরে নকলা থানার এস আই চন্দন পাল ওয়ার্ড কমিশনার ফরিদ আহাম্মেদ লালন পরিত্যাক্ত ভবন থেকে বের করে হাসপাতালে ভর্তি করে দেন।

সেই থেকে নকলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেসে ভর্তি আছে পরিচয় বিহীন এই নারী। ওয়ার্ড ইনচার্জ হাসি বেগম নিজের বাসা থেকে কাপড় এনে সেই ছিন্নমূল নারীকে গোছল করিয়ে নতুন কাপড় পড়িয়ে নিজের হাতে খাবার মুখে তুলে দেন। ভারসাম্যহীন নারী নার্সের পরম মততায় আদর যত্নে অনেকটাই সুস্থ।

নার্স হাসি বেগম ছাড়া অন্য কারো হাতের খাবার খায় না। হাসি বেগম ভারসাম্যহীন নারীর ইশারার ভাষা বুঝেন। পারভিন মাঝে মাঝে উত্তেজিত হয়ে যায়, অন্য কোন নার্স ভারসাম্যহীন পারভিনকে সামলাতে পারে না। পারভিন হাসি বেগমের ইসারার ভাষা বুঝে। এখন হাটা চলাফেরা করত পারে।

নার্স শব্দের অর্থ হচ্ছে সেবক বা সেবিকা। পেশাই বলে দেয় তার কাজ। হাসপাতালে, ক্লিনিকে মানুষকে পরম মমতায় যত্ন সহকারে সেবা দিয়ে সুস্থ করে তুলেন নার্সরা। বাস্তব উদাহারন নকলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত ওয়ার্ড ইনচার্জ হাসি বেগম।

হাসি বেগম বলেন, পারভিনকে নতুন জামা কাপর কিনে দেওয়া হয়েছে। আমরা যদি তার পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিতে পারি তাহলে সবচেয়ে বেশি খুশি হবো। কেউ যদি ভারসাম্যহীন পারভিনের পরিবারের সন্ধান জানেন তা হলে নকলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এসে যোগাযোগ করার জন্য বলা হচ্ছে।

 
Electronic Paper