লাগামহীন সবজি বাজার

ঢাকা, শনিবার, ২৫ জুন ২০২২ | ১১ আষাঢ় ১৪২৯

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

লাগামহীন সবজি বাজার

মাহবুব আলম প্রিয়, রূপগঞ্জ
🕐 ৬:২৫ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৩০, ২০১৯

লাগামহীন সবজি বাজার

হেমন্তের শেষ বেলায় শীত ছুঁই ছুঁই। এতোদিনে মৌসুমীসহ শীতকালীন সবজি বাজারে সয়লাব হলেও দাম সাধারণ ক্রেতাদের নাগালের বাইরে। এতে কৃষকরা খুশি হলেও বিপাকে ক্রেতারা। তবে বেশি মুনাফা লোভে এখানেও রয়েছে মধ্যস্বত্তভোগীদের সিন্ডিকেট। আর এ সিন্ডিকেটের কারণে অনেকাংশে কৃষকরাও দাম পাচ্ছে না।

সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, উপজেলার খুচরা বাজারে মাঝারি আকারের একটি লাউ ৪০-৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। সিম ১০০-১২০ টাকা, বেগুন ৬০-৭০ টাকা, করল্লা ৮০ টাকা, শসা ১০০ টাকা, গাজর ৮০ টাকা, ফুলকপি ৪০-৫০ টাকা, টমেটো ১২০ টাকা।

গোয়ালপাড়ার রিপন মিয়া বলেন, পূর্বাচলের কৃষকদের উৎপাদিত সবজি বিষমুক্ত ও টাটকা। তাই এসব সবজির দাম একটু বেশি। আর এসব সবজি কিনতে আসেন ঢাকার অভিযাত এলাকার বাসিন্দারা। ফলে তাদের কাছে দাম কোন বিষয় না।

শিক্ষক মঞ্জুরুল ইসলাম বলেন, কৃষকের কষ্টার্জিত ফলানো ফসলের ন্যায্য দাম না পাওয়াতে সিন্ডিকেট কবলের হাত থাকে। এ সিন্ডিকেট না ভাঙলে পরিস্থিতি এমনটাই থাকবে। তাই সিন্ডিকেট ও বাজার মনিটরিং ব্যবস্থা জোরদার করতে হবে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা তাজুল ইসলাম বলেন, রূপগঞ্জের বেশির ভাগ ফসলি জমি এখন আবাসন কোম্পানীর বালির তলায়। তবে নদী পারে ও দাউদপুর ভোলাব এলাকায় ব্যাপক ফলন হয়েছে। এসব সবজি বাজারে এলে দাম কমে যাবে আশা করি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মমতাজ বেগম বলেন, সবজির দাম একটি অঞ্চলে কম বা বেশি তা নিয়ে স্থানীয় প্রশাসনের কিছু করার থাকে না। তবে পৌর এলাকায় হলে মান ও অন্যান্য আইনি দিক দেখাশুনার ব্যবস্থা রয়েছে।

 
Electronic Paper