জামিনে মুক্ত কলেজছাত্র

ঢাকা, শনিবার, ২৩ নভেম্বর ২০১৯ | ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বাদীর ভুলে কারাবাস

জামিনে মুক্ত কলেজছাত্র

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি ১০:৩৬ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৩, ২০১৯

print
জামিনে মুক্ত কলেজছাত্র

বাদীপক্ষের ভুলে এক মাস কারাবাস করে জামিনে ছাড়া পেলেন কলেজছাত্র বাবুল হোসেন নয়ন। গত ২৫ সেপ্টেম্বর স্কুলছাত্রী অপহরণ ও ধর্ষণ মামলায় তাকে গ্রেফতার করা হয়। বাদীপক্ষের ভুল আবেদনে প্রকৃত আসামি নয়ন মিয়ার পরিবর্তে নির্দোষ বাবুল হোসেন নয়নকে গ্রেফতার করা হয়। বুধবার দুপুরে টাঙ্গাইলের সখীপুর আমলি আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আকরামুল ইসলাম তার জামিন মঞ্জুর করেন। বিকালে কারাগার থেকে ছাড়া পান নয়ন।

সখীপুর উপজেলার প্রতিমা বংকী গ্রামের শাহজাহান আলীর ছেলে নয়ন। সরকারি মুজিব কলেজ থেকে ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল তার।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, সখীপুর থেকে বাসাইল উপজেলায় বেড়াতে এসে গত ২১ সেপ্টেম্বর এক স্কুলছাত্রী নিখোঁজ হন। এর চার দিন পর টাঙ্গাইল ডিসি লেকের পাশ থেকে ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে তার পরিবার। পরে মেয়েটির মা বাদী হয়ে প্রতিবেশী বাবুল হোসেন নয়নকে আসামি করে অপহরণ ও ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন। পুলিশ নয়নকে গ্রেফতার করলে তাকে ধর্ষক হিসেবে চিহ্নিত করে মেয়েটি।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সখীপুর থানার এসআই আসাদুজ্জামান বলেন, মেয়েটির কাছ থেকে পাওয়া কক্সবাজারের একটি আবাসিক হোটেলের বিজনেস কার্ডের সূত্র ধরে তদন্ত করা হয়। আর এ পর্যায়ে জানা যায়, বাবুল হোসেন নয়ন নয়, বরং নয়ন মিয়া নামের একজন ওই ঘটনার সঙ্গে জড়িত।

৭ অক্টোবর প্রকৃত আসামি নয়ন মিয়াকে বাসাইল বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার নয়ন মিয়া মেয়েটিকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে।