৬ বছর পর ফেনী প্রেসক্লাবের তালা খুলল

ঢাকা, সোমবার, ২৪ জানুয়ারি ২০২২ | ১১ মাঘ ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

৬ বছর পর ফেনী প্রেসক্লাবের তালা খুলল

ফেনী প্রতিনিধি
🕐 ৪:৫৩ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০৬, ২০২১

৬ বছর পর ফেনী প্রেসক্লাবের তালা খুলল

দীর্ঘ ছয় বছর পর ফেনী প্রেসক্লাবে তালা খুলেছে। নিজেদের মধ্যে বিভেদ ভুলে এক হতে চলেছে জেলার কর্মরত পেশাদার সাংবাদিকরা।

 

রবিবার (৬ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে সাংবাদিকরা এক হয়ে ক্লাবে প্রবেশ করে।

এরপর সাংবাদিকরা শহরের জেল রোড়স্থ শহীদ স্মৃতিস্তম্বে মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। এবং প্রেসক্লাবের ঐক্যের ব্যাপারে শপথ বাক্য পাঠ করেন।

সাংবাদিকরা বলেন, জেলার ইতিবাচক সাংবাদিকতাকে টিকিয়ে রাখার প্রশ্নে প্রেসক্লাবের তালা খোলার বিকল্প ছিলো না।

দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিনের ফেনী জেলা প্রতিনিধি জমির উদ্দিন বেগ বলেন, দীর্ঘদিন বন্ধ ছিলো ফেনী প্রেসক্লাব। পেশাদার সাংবাদিকদের প্রাণের এ জায়গাটি বন্ধ থাকায় ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছিল সাংবাদিকতা। সাংবাদিকদেন মধ্যে বাড়ছিলো অনৈক্য। বিবাদমান এ অচলাবস্থা দূর করার প্রয়াসে ফেনীর সাংবাদিকরা এক হয়েছে ঐক্যের প্রশ্নে। যার ধারাবাহিকতায় ক্লাবে প্রবেশ করেছে সাংবাদিকরা।

রবিবার সকালে জেলার কর্মরত সাংবাদিকরা ঐক্যবদ্ধভাবে ক্লাবের তালা ভেঙ্গে প্রবেশ করেন। এরপর এক এক করে জেলার কর্মরত অন্য সাংবাদিকরাও ক্লাবে প্রবেশ করে। এবং ক্লাব ধুয়ে মুছে নিজেদের বসার উপযোগী করেন।

সদ্য ঘোষিত ফেনী রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন বলেন, 'আমরা জেলার সকল সাংবাদিকরা চাই জেলার প্রাচীণ এই সাংবাদিক সংগঠনটি প্রাণ ফিরে পাক। বিবেদ ভুলে সকল সাংবাদিকরা এক ছাদের নিচে আসুক৷ প্রেসক্লাবে সাংবাদিকরা ফেরায় ফেনী সাংবাদিকতা নতুন করে প্রাণ সঞ্চার করবে। পেশাগত সাংবাদিকদের অনৈক্যের কারণে অপেশাদাররা মাথাচাড়া দিয়ে উঠে। আশা করব সে অবস্থার অবশান ঘটবে।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ২৫ ডিসেম্বর ক্লাবটিকে সীলগালা করে দেয় প্রশাসন। ক্লবের দুই পক্ষের মধ্যে বিবাদের কারণে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির আশঙ্কায় জেলা প্রশাসন এ সীদ্ধান্ত নিয়েছিলো। এরপর অবস্থার উন্নতি হলে খুলে দেয়া হয়। সর্বশেষ ২০১৬ সালের ৩ মে আবার সীলগালা করেছিলো।

 
Electronic Paper