আবহাওয়া অফিস ঘিরে বহুতল ভবন, সঠিক পূর্বাভাস না পাওয়ার শঙ্কা

ঢাকা, রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৪ আশ্বিন ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

আবহাওয়া অফিস ঘিরে বহুতল ভবন, সঠিক পূর্বাভাস না পাওয়ার শঙ্কা

নিজস্ব প্রতিবেদক, চাঁদপুর
🕐 ৪:৫৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২১

আবহাওয়া অফিস ঘিরে বহুতল ভবন, সঠিক পূর্বাভাস না পাওয়ার শঙ্কা

চাঁদপুরে আবহাওয়া অফিস ঘিরে গড়ে উঠছে বহুতল ভবন। সরকারি বিধিনিষেধ তোয়াক্কা করছে না ভবন মালিকরা। এমনকি আবহাওয়া অফিস থেকে পাঠানো নোটিশও তারা রিসিভ করছে না। এতে ভবিষ্যতে চাঁদপুরে আবহাওয়ার সঠিক পূর্বাভাস পাওয়া নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সরকার তথা আবহাওয়া পর্যবেক্ষণের স্বার্থে আবহাওয়া আইনের ৪র্থ অধ্যায়ের ১৫(২) ধারায় উল্লেখ রয়েছে আবহাওয়া অফিসের সীমানা প্রাচীর হতে ১শ মিটারের মধ্যে সু-উচ্চ স্থাপনা (৩০-৩৫ ফুট) এর উপরে নির্মাণ সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। অথচ চাঁদপুর শহরের পালপাড়ায় আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারটি ধীরে ধীরে ভবনের আড়ালে পড়ে যাচ্ছে।

ইতোমধ্যে আবহাওয়া ভবনের পশ্চিম পাশে গড়ে উঠেছে ৫তলা বিশিষ্ট ভবন। পশ্চিম পাশে নতুন করে আরো একটি ভবন উঠছে। ইতোমধ্যে চতুর্থ তলার ছাদ ঢালাই হয়েছে। পঞ্চম তলার জন্যে পিলার তৈরি করা হচ্ছে। এমতাবস্থায় চাঁদপুর আবহাওয়া অফিস থেকে বিভিন্নভাবে এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার অনুরোধ জানালেও কাজের কাজ কিছুই হচ্ছে না।

সর্বশেষ আবহাওয়া ও ভূ-প্রাকৃতিক কেন্দ্র এর উপপরিচালক (চলতি দায়িত্ব) সৈয়দ আবুল হাসানাৎ চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনারকে ব্যবস্থা নিতে অনুরোধ জানান। চলতি মাসের ২ তারিখ চিঠি প্রেরণ করেন। চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, প্রথম শ্রেণীর আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগার, চাঁদপুর অফিসের পশ্চিম পার্শ্বের সীমানা সংলগ্ন রোজিনা আক্তার গাঙ্গুলী পাড়া কর্তৃক সুউচ্চ স্থাপনা নির্মাণ করছেন। এই স্থাপনা নির্মাণ হলে বিশ্ব আবহাওয়া সংস্থা এবং আবহাওয়া আইনের ৪র্থ অধ্যায়ের ১৫(২) ধারা ভঙ্গ হলে পর্যাবেক্ষণাগারটি হতে সঠিক আবহাওয়া উপাত্ত পাওয়া যাবে না। ফলে চাঁদপুরের জন্যে আবহাওয়ার সঠিক পূর্বাভাস ব্যাহত হবে।

শুধু তাই নয়, বিষয়টি অবগত ও ব্যবস্থা নেয়ার জন্যে চাঁদপুর আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগার এর অফিসার ইনচার্জ শাহ্ মুহাম্মদ শোয়েব চিঠি দিয়ে বেশ কয়েকটি দপ্তরকে অবগত করেন।

অপরদিকে, চলতি বছরের ২ আগস্ট শহরের গাঙ্গুলী পাড়ার রোজিনা আক্তারকে নোটিশ করা হয়। যার অনুলিপি বাংলাদেশ আবহাওয়ার অধিদপ্তর, চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক, চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র ও আবহাওয়া ও ভূ-প্রাকৃতিক কেন্দ্র আগ্রাবাদ চট্টগ্রাম এর উপ-পরিচালক বরাবরে পাঠানো হয়।

এ বিষয়ে চাঁদপুর আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগার এর অফিসার ইনচার্জ শাহ্ মুহাম্মদ শোয়েব বলেন, অতি গুরুত্বপূর্ণ উপকূলীয় জেলা চাঁদপুরে আবহাওয়া পূর্বাভাস ব্যাহত হবে। স্থানীয় প্রশাসন উক্ত বিষয়টি সম্পর্কে অবগত আছেন এবং তা যেনো গুরুত্বের সহিত আমলে নেন।

জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজিলশ বলেন, আমি চিঠি পেয়েছি। এ বিষয়ে পদক্ষেপ নিতে চাঁদপুর পৌরসভা কর্তপক্ষকে বলা হয়েছে।

চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র মো. জিল্লুর রহমান জুয়েল বলেন, এ সংক্রান্ত একটি চিঠির অনুলিপি আমরা পেয়েছি। সরাসরি আমাদের কোন চিঠি ইস্যু করা হয়নি। তারপরেও আমরা একটি তদন্ত টিম গঠনের উদ্যোগ নিয়েছি।

 
Electronic Paper