মেম্বারের নেতৃত্বে শত বছরের পুকুর ভরাট

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ৫ আশ্বিন ১৪২৬

মেম্বারের নেতৃত্বে শত বছরের পুকুর ভরাট

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি ৪:৩৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ০৭, ২০১৯

print
মেম্বারের নেতৃত্বে শত বছরের পুকুর ভরাট

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদরের রামরাইল ইউনিয়নের উলচাপাড়ায় পরিবেশ আইন অমান্য করে শত বছরের পুরাতন একটি পুকুর ভরাট করেছে স্থানীয় ইউপি মেম্বারের নেতৃত্বে একটি সংঘবদ্ধ চক্র।

ইতোমধ্যে প্রায় ২৫ হাজার বর্গফুট আয়তনের পুকুরটি তারা ভরাট করে ফেলেছে। পুকুরটি ভরাট না করতে এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে বাধা দিয়েও কোনো লাভ হয়নি। প্রতিবাদ করলেও কর্তৃপক্ষের সহযোগিতার অভাবে তা ঠেকানো যাচ্ছে না বলে জানান স্থানীয় একজন জনপ্রতিনিধি। তবে কালাম মেম্বারের অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমি ক্রয়সূত্রে এ পুকুরের মালিক। আরও মালিক আছে। এখানে কোনো পুকুর ছিল না।

শিক্ষক ফরিদ উদ্দিন বলেন, আমাদের কাগজপত্রে এটা নালা জমি। এখানে কোনো পুকুর ছিল না।

এদিকে, গত ২৮ আগস্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া পরিবেশ অধিদফতরের পরিদর্শক মো. মুমিনুল ইসলাম এবং নমুনা সংগ্রহকারী মো. কাউছার সরেজমিন পুকুরটির বর্তমান অবস্থা পরিদর্শন করেন। ২৯ আগস্ট পরিবেশ অধিদফতর কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. কামরুজ্জামান স্বাক্ষরিত অবৈধভাবে পুকুর ভরাটকারীদের বরাবর একটি কারণ দর্শানো নোটিশ পাঠানো হয়।

পরিদর্শক মো. মুমিনুল ইসলাম বলেন, প্রাথমিকভাবে ভরাটকারীদের কারণ দর্শানো নোটিশ প্রদান করা হয়েছে। নোটিশে পুকুরটি পূর্বের অবস্থায় ফিরিয়ে আনার নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে। নির্দেশনা অমান্য করলে তৃতীয় নোটিশের পর পরিবেশ সংরক্ষণ আইন অনুযায়ী মামলা করা হবে।