‘ক্রাইম পেট্রোল’ দেখে প্রভাবিত হয়ে ভাবিকে খুন

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯ | ১ শ্রাবণ ১৪২৬

‘ক্রাইম পেট্রোল’ দেখে প্রভাবিত হয়ে ভাবিকে খুন

চট্টগ্রাম ব্যুরো ৭:৪৮ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৯

print
‘ক্রাইম পেট্রোল’ দেখে প্রভাবিত হয়ে ভাবিকে খুন

ভাবির কাছে আর্থিক সহায়তা চেয়ে না পেয়ে তাকে খুন করেছেন এক যুবক। চট্টগ্রাম নগরের আকবরশাহ থানার কালিরহাট এক নম্বর গলির ইদ্রিস সওদাগরের ভবনে এ ঘটনা ঘটে।

গত ৮ ফেব্রুয়ারি দুপুরে ভবনটির নিচতলা থেকে হাসিনা বেগম নামে এক পোশাক কর্মীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এরপর দেবর ফরহাদ হোসেন লিমনকে গ্রেফতার করে রিমান্ডে নেওয়া হলে ভাবিকে হত্যার কথা স্বীকার করেন তিনি।

লিমন ভারতীয় টিভি চ্যানেল সনি আটের শো ‘ক্রাইম পেট্রোল’ দেখে প্রভাবিত হয়ে ভাবিকে হত্যার পর চুরির ঘটনা সাজানোর চেষ্টা করে বলে পুলিশকে জানায়।

নিহত হাসিনা বেগম নোয়াখালী জেলার সুধারাম থানার পশ্চিম মাইজচরা গ্রামের মৃত নিজাম চৌধুরীর মেয়ে। নগরের আকবরশাহ থানা এলাকার ইদ্রিস সওদাগরের ভবনের নিচতলায় ভাড়াটিয়া হিসেবে থাকতেন। নগরের একটি পোশাক কারখানায় কাজ করতেন তিনি। তার স্বামী আনোয়ার হোসেন লিটন সৌদি প্রবাসী। তাদের বার বছর বয়সী একমাত্র ছেলে আবির হোসেন নগরের নেছারিয়া কামিল মাদরাসায় হোস্টেলে থেকে পড়াশুনা করেন। একই ভবনের চতুর্থ তলায় ব্যাচেলর হিসেবে ভাড়া থাকতেন লিটনের ছোট ভাই চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ থানার আশটা গ্রামের আবুল কাশেম পাটোয়ারীর ছেলে ফরহাদ হোসেন লিমন। তিনিও একটি পোশাক কারখানায় কাজ করেন।

নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ ও অভিযান) আমেনা বেগম বলেন, লিমন জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে তার ভাবি হাসিনা বেগমের কাছে প্রায় সময় টাকা পয়সা চাইলে ভাবি তাকে আর্থিকভাবে কোন সহায়তা করতো না। বার বার টাকা চেয়ে প্রত্যাখাত হওয়ায় তার মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। এরপর সে ভাবিকে হত্যার পরিকল্পনা করে।

তিনি বলেন, গত ৭ ফেব্রুয়ারি রাত ১২টার দিকে হাসিনা বেগম রান্না ঘরে পানি গরম করছিলেন। এ সময় লিমন টিভিতে খেলা দেখার কথা বলে তার ঘরে প্রবেশ করে। পানি গরম করার পর ঘুমিয়ে পড়েন হাসিনা বেগম। রাত তিনটার দিকে হাসিনা বেগমকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে লিমন। পরে হাসিনা বেগমের স্বর্ণালঙ্কার ও মোবাইল ফোন নিয়ে বাইরে থেকে দরজায় তালা মেরে দেয়।'

পরদিন দুপুরে খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় হাসিনা বেগমের ভাই মো. মানিক বাদি হয়ে মামলা দায়ের করেন। গত শনিবার অভিযান চালিয়ে ফরহাদ হোসেন লিমনকে গ্রেফতার কররে পুলিশ। পরদিন আদালতে হাজির করে পাঁচদিনের রিমান্ডে নেয় তারা। রিমান্ডে নেওয়ার প্রথমদিনেই ভাবিকে হত্যার কথা স্বীকার করে লিমন। তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী তার বাসার সাউন্ড বক্সের ভেতর থেকে হাসিনা বেগমের খোয়া যাওয়া স্বর্ণালঙ্কার ও ওজন স্কেলের ভেতর থেকে মোবাইল ফোন উদ্ধার করে পুলিশ।

আকবরশাহ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মহিবুর রহমান সমকালকে বলেন, লিমন জানিয়েছে সে ভারতীয় টিভি চ্যানেলে নিয়মিত ক্রাইম পেট্রোল দেখতো। সেখান থেকে প্রভাবিত হয়ে ভাবিকে হত্যার পরিকল্পনা করে। এরপর চুরির ঘটনা হিসেবে সাজানোর চেষ্টা করে।