অধ্যাপক ড. হিমেল বরকতের দাফন সম্পন্ন

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১ | ৫ মাঘ ১৪২৭

অধ্যাপক ড. হিমেল বরকতের দাফন সম্পন্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক ৪:৪৯ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৩, ২০২০

print
অধ্যাপক ড. হিমেল বরকতের দাফন সম্পন্ন

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. হিমেল বরকতের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। ২৩ নভেম্বর, সোমবার সকাল ১০টায় মোংলার মিঠাখালী ফুটবল মাঠে জানাজা শেষে তাকে মিঠাখালীর নিজ বাড়ির পারিবারিক কবরস্থানে মায়ের কবরের পাশে শায়িত করা হয়েছে। 

শিক্ষক হিমেল বরকতের জানাজায় স্থানীয় বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দসহ সর্বস্তরের বিপুলসংখ্যক লোকজন অংশ নেন। এ সময় মরহুমের জন্য তার পরিবারের পক্ষ থেকে সকলের কাছে দোয়া চান তার ভাই ডা. মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ, আবির আব্দুল্লাহ, সুবির ওবায়েদ, সুমেল সারাফাতা ও ভগ্নিপতি মাহমুদ হাসান ছোট মনি।

জানাজার আগে মরহুমকে নিয়ে স্মৃতিচারণ করেন উপজেলা চেয়ারম্যান আবু তাহের হাওলাদার, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ইদ্রিস আলী, পৌর মেয়র মো. জুলফিকার আলী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম হোসেন, হাফেজ মাওলানা রুহুল আমিন, মাওলানা তৈয়বুর রহমান ও মাওলানা আব্দুর রহমানসহ অন্যান্যরা।

ড. হিমেল বরকত ছিলেন প্রয়াত কবি রুদ্র মুহাম্মদ শহিদুল্লাহর ছোট ভাই এবং মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের সাবেক ডক শ্রমিক পরিচালনা বোর্ডের ডা. প্রয়াত ওয়ালিউল্লাহর ছোট ছেলে।

২১ নভেম্বর, শনিবার সকালে অনলাইনে ক্লাস নেয়ার সময় হঠাৎ হার্ট অ্যাটাক করলে তাকে তাৎক্ষণিক ঢাকা বারডেম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২২ নভেম্বর, রোববার ভোর রাত সাড়ে ৪টার দিকে তার মৃত্যু হয়। ওইদিন বিকেলে তার প্রিয় কর্মস্থল জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে প্রথম জানাযা শেষে তাকে মোংলার মিঠাখালীর নিজ বাড়িতে আনা হয়। এরপর সেখানেই তাকে চিরনিদ্রায় শায়িত করা হয়েছে।

ড. হিমেল স্ত্রী ও এক কন্যাসন্তানসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তার অকাল মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে মিঠাখালীসহ পুরো মোংলা জুড়ে।