বিরোধে ছাত্রলীগ নেতার হাতের কব্জি কেটে বিচ্ছিন্ন করল প্রতিপক্ষ!

ঢাকা, রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০ | ১০ কার্তিক ১৪২৭

বিরোধে ছাত্রলীগ নেতার হাতের কব্জি কেটে বিচ্ছিন্ন করল প্রতিপক্ষ!

পিরোজপুর প্রতিনিধি ৯:২২ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ১৯, ২০২০

print
বিরোধে ছাত্রলীগ নেতার হাতের কব্জি কেটে বিচ্ছিন্ন করল প্রতিপক্ষ!

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় ছাত্রলীগের দুই গুরুপের বিরোধে শুভ শর্মা শীল (২০) নামে এক যুবকের  ডান হাতের কব্জি কেটে বিচ্ছিন্ন করে ফেলেছে প্রতিপক্ষ। গুরুতর আহত অবস্থায় শুভ শর্মা শীলকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

মঙ্গলবার (১৮ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে স্থানীয় ওহাবিয়া দাখিল মাদ্রাসা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, শুভ শলী একটি ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক।

ছাত্রলীগের একটি সূত্র জানিয়েছে, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শরীফুল ইসলাম এবং ভাইস চেয়ারম্যান আরিফুর রহমান সিফাতের সঙ্গে বিরোধ রয়েছে। শুভ শর্মা শীল সিফাতের অনুসারী।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও ফেরদৌস জানান, শুভ শর্মা শীলকে ডান হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে। তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান জানান, শুভ শর্মা শীলের ওপর হামলার সঙ্গে পৌর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সাদীসহ বেশ কয়েকজন অংশ নেন। হামলাকারীরা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শরীফুল ইসলামের অনুসারী। তবে শরীফুল ইসলামের ভাষ্য, কোনও রাজনৈতিক বিরোধ নয়, স্থানীয় বিরোধের জেরে শুভর ওপর এ হামলা হয়েছে।

মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদুজ্জামান জানান, ঘটনাটি আমরা জেনেছি। শুভর ওপর হামলার সঙ্গে জড়িতদের আটকে অভিযান চলছে।

এদিকে, মঠবাড়িয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র রফিউদ্দিন আহমেদ ফেরদৌস দাবি করেন, এ ঘটনা ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে তার বাড়িতে হামলা করা হয়েছে।