রোগী শূন্য কাউখালী কমপ্লেক্স

ঢাকা, সোমবার, ১ জুন ২০২০ | ১৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

রোগী শূন্য কাউখালী কমপ্লেক্স

কাউখালী (পিরোজপুর) প্রতিনিধি ১:১৩ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ০৯, ২০২০

print
রোগী শূন্য কাউখালী কমপ্লেক্স

করোনা ভাইরাস সংক্রমণের আতঙ্কে রোগী শূন্য হয়ে পড়েছে কাউখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। সারা দেশে করোন ভাইরাস ছাড়িয়ে পড়লে সরকার মানুষজনকে প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে বের না হতে নির্দেশ দেন। সরকারি নির্দেশনার কারণে প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘর থেকে বাহিরে বের হন না। এতে উপজেলা সদরের ৩১ শয্যা বিশিষ্ট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটি রোগী শূন্য হয়ে পড়েছে। করোনা ভাইরাস শুরু হওয়ার আগেও রোগী ভর্তি ছিল স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটিতে। করোনা সংক্রমণের ভয়ে মানুষজন হাসপাতালে আসছে না।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, করোনা ভাইরাসের আগে সাধারণ মানুষ সামান্য সর্দি, জ্বর, কাঁশি হলেই হাসপাতালে ছুটে আসতেন চিকিৎসা নিতে।

এখন করোন আতঙ্কে কেউ চিকিৎসা নিতে আসছেন না। এই হাসপাতালে প্রতিদিন ১০-১২ জন রোগী চিকিৎসার জন্য ভর্তি হতো এবং আউট ডোরে ২৫০-৩০০ জন রোগী চিকিৎসা নিতে আসতো। এখন হাসপাতালে ২৫-৩০ জন রোগী আসলেও তারা চিকিৎসা পত্র নিয়ে বাড়ি চলে যান।

সরেজমিনে গত সোমবার কাউখালী হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, পুরুষ ওয়ার্ডে দুজন ও মহিলা ওয়ার্ডে একজন রোগী ভর্তি রয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. হাবিবুর রহমান জানান, আগে মানুষ সামান্য সর্দি, জ্বর, কাঁশি হলে হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসতেন। এখন সেই সব রোগী করোনা আতঙ্কে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে আসছেন না। তবে কোন রোগী চিকিৎসার জন্য আসলে তাকে চিকিৎসা দেওয়া হবে।

কাউখালীতে প্রথম অবস্থায় ৪১ জন হোম কোয়ারান্টাইনে ছিলেন, তাদের ১৪ দিনের মেয়াদ শেষ হওয়ার কারণে তাদেরকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। তবে হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসার জন্য পাঁচটি আইসোলেশন বেড রয়েছে। তিনি আরও বলেন, কোন রোগীর করোনার যেকোন লক্ষন দেখা দিলে দ্রুত হাসপাতালে যোগাযোগ করবেন।

এরজন্য হাসপাতালে একটি হটলাইন নম্বর চালু করা হয়েছে। তিনি করোনা ভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সরকারি নির্দেশনা মেনে চলার আহ্বান জানিয়ে সবাইকে ঘরে অবস্থান করার পরামর্শ দেন।