বরিশালে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা ৮৯৯ জনকে ছাড়পত্র

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৪ জুন ২০২০ | ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

বরিশালে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা ৮৯৯ জনকে ছাড়পত্র

বরিশাল প্রতিনিধি ২:৫৫ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৬, ২০২০

print
বরিশালে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা ৮৯৯ জনকে ছাড়পত্র

বরিশাল বিভাগে গত ১০ মার্চ থে‌কে এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসের উপসর্গ না থাকায় কোয়ারেন্টিন শেষে ৮৯৯ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ১৯৮ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০ টায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বরিশাল বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক ডা. বাসুদেব কুমার দাস এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে বরিশাল বিভাগে ২ হাজার ৫৮৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। এদের মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন ১১৪ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনের (বাড়িতে পৃথক কক্ষে) আওতায় আনা হয়েছে। এসব ব্যক্তির বেশির ভাগই বিদেশফেরত।

তিনি আরও জানান, কোয়ারেন্টিনে থাকা অধিকাংশই প্রবাসী। এছাড়া বরগুনা ও বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন থাকা ৪ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। নতুন করে করোনায় সন্দেহে ভর্তি হয়েছেন আরও দুইজনকে। তবে বরিশাল বিভাগে এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি।

বরিশাল বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সূত্র জানায়, গত ১০ মার্চ থে‌কে এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসের উপসর্গ না থাকায় কোয়ারেন্টিন শেষ ৮৯৯ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৯৮ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। কোয়ারেন্টিন থেকে বরিশাল নগরে পাঁচজন, জেলায় ১৪৬ জন, পটুয়াখালীতে ৩১৩ জন, ভোলায় ১২০, পিরোজপুরে ১২৬ জন, বরগুনায় ১২৯ জন ও ঝালকাঠিতে ৫৮ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। এছাড়া শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে করোনা সন্দেহে ভর্তি হওয়া দুইজন চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন।